অভয়নগরে শিশু ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগে যুবক আটক

129
‘অসংখ্য মাদক মামলার সাক্ষি’ রহিম ফেনসিডিলসহ আটক

অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি :
যশোরের অভয়নগরে ৮ বছর বয়সি এক শিশুকে ধর্ষণের পর গলা টিপে হত্যাচেষ্টার অভিযোগে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। শুক্রবার (৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ওই শিশুর মা বাদী হয়ে রানা গাজী (১৯) নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে অভয়নগর থানায় মামলা করেন। অভিযুক্ত রানা গাজীকে আটক করেছে পুলিশ। সে উপজেলার বুইকারা গ্রামের রানাভাটা এলাকার বিল্লাল গাজীর ছেলে।

মামলার বিবরণে জানা যায়, বৃহস্পতিবার (৮ সেপ্টেম্বর) দুপুরে বিল্লাল গাজীর বাড়িতে ওই শিশু ও অপর এক শিশুর সাথে খেলা করছিল। খেলাধুলার এক পর্যায়ে বাড়ির মালিকের ছেলে রানা গাজী ওই শিশুকে ফুসলিয়ে তার ঘরে নিয়ে যায় এবং ধর্ষণ করে। এক পর্যায়ে চিৎকার করলে রানা ওই শিশুর গলা টিপে ধরে হত্যার চেষ্টা করে। চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা এগিয়ে আসলে রানা পালিয়ে যায়। রক্তাক্ত অবস্থায় শিশুটিকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।
মামলার বাদী ওই শিশুর মা জানান, আমার শিশু কন্যাকে ধর্ষণের পর হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। রানা গাজীর বিরুদ্ধে মামলা করেছি। পুলিশ তাকে আটক করেছে। অপরাধীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন তিনি।
এ ব্যাপারে অভয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা  একেএম শামীম হাসান বলেন, ‘শিশু ধর্ষণ ও হত্যা চেষ্টা মামলায় অভিযুক্ত রানা গাজীকে আটক করা হয়েছে। তাকে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।’