এ কেমন অভিমান!

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি ॥ জীবনে কখনো কখনও অভিমান মৃত্যুর চেয়ে ভয়ঙ্কর হয়, ১০ বছরের শিশু মরিয়মের আত্মহত্যা সেটিই প্রমাণ করলো। শিশু মরিয়ম পাইকগাছার রাড়ুলী গ্রামের জুলফিকার আলী গাজীর চতুর্থ শ্রেণি পড়ুয়া মেয়ে। শনিবার সকালে অন্যান্য সহপাঠীদের সাথে খেলা করার পর ডিম ভাজাকে কেন্দ্র করে সকাল ৯টার দিকে মায়ের প্রতি অভিমান করে নিজ বসত ঘরের আড়াতে গলায় কাপড় পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করার চেষ্টা করে শিশু মরিয়ম। পরে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করে পরিবারের লোকজন তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। হাসপাতালে নিয়ে গেলেও মায়ের প্রতি যে অভিমান সেটা ভাঙ্গাতে পারেনি হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসকরা।

মেডিকেল অফিসার তাহেরা ইয়াসমিন পিংকি জানান, শিশুটিকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়। পরে খবর পেয়ে হাসপাতালে গিয়ে সুরোতহাল রিপোর্ট শেষে পরিবারের নিকট মৃতদেহ হস্তান্তর করা হয় বলে থানা পুলিশের ওসি জিয়াউর রহমান জানিয়েছেন।

শেয়ার