নড়াইলে ভুয়া কোম্পানির খপ্পরে পড়ে বিপাকে ব্যবসায়ী

নড়াইল প্রতিনিধি ॥ নড়াইলে সুপার স্টারের আড়ালে ভুয়া কোম্পানির খপ্পরে পড়ে ক্রোকারিজ ব্যবসায়ী মো: হাদিয়ার রহমান বিপাকে পড়েছেন। রুপগঞ্জ জননী সুপার মার্কেটের রাতুল এন্টারপ্রাইজের স্বত্ত্বাধিকারী মো: হাদিয়ার রহমান অভিযোগে জানান, ২০১৯ সালে সুপার স্টারের ভুয়া লোগো লাগানো পণ্যের মালিক কুষ্টিয়ার মো: ফরহাদ হোসেন টিটোকে ৩০ হাজার টাকার চেক প্রদান পূর্বক তিনি সুপার স্টার হোম অ্যাপলায়েন্স নামে গ্যাস স্টোভ ও রাইস কুকারের ডিলারশীপ নেন এবং বাজারের বিভিন্ন দোকানে তা ডিস্ট্রিবিউট করেন। গ্যাস স্টোভ ও রাইস কুকার সুপার স্টারের আড়ালে ভুয়া কোম্পানির হওয়ায় তা কিনে মানুষ প্রতারণার শিকার হন। গ্যাসের চুলায় আগুন ধরার এবং রাইস কুকারেও দুর্ঘটনা ঘটার এক পর্যায়ে ক্রেতাদের আক্রমণের শিকার হতে থাকেন রাতুল এন্টারপ্রাইজের স্বত্ত্বাধিকারী মো: হাদিয়ার রহমান। উপায়ান্ত না দেখে তিনি সুপার স্টার কর্তৃপক্ষের কাছে গ্যাস স্টোভ ও রাইস কুকারের বিষয়ে খোঁজ খবর নিয়ে জানতে পারেন এ দুটি পণ্য তাদের না। সুপার স্টারের ভুয়া লোগো লাগিয়ে পণ্য দুটি বাজারজাত করা হচ্ছে। ভুয়া পণ্য বুঝতে পেরে হাদিয়ার রহমান শেষমেষ ভুয়া পণ্যের মালিক মো: ফরহাদ হোসেন টিটোকে সরবরাহকৃত পণ্য ফেরত নেয়ার অনুরোধ জানান এবং প্রদানকৃত চেকটি ফেরত দিতে বলেন। টিটো চেক ফেরত না দিয়ে উল্টো হাদিয়ার রহমানের নামে চেক ডিসঅনার মামলার উকিল নোটিশ পাঠিয়েছেন।
এ ব্যাপারে সুপার স্টার হোম অ্যাপলায়েন্স’র স্বত্ত্বাধিকারী মো: ফরহাদ হোসেন টিটোর সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তার মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়।

শেয়ার