ইউনিয়ন যুবলীগ নেতা বুলেটকে বহিষ্কার

অভয়নগরে ইউপি মেম্বার উত্তম সরকার হত্যাকাণ্ড

অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি ॥ যশোরের অভয়নগর উপজেলার সুন্দলী ইউনিয়ন যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি প্রজিৎ কুমার বিশ্বাস ওরফে বুলেটকে তাঁর পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। সুন্দলী ইউনিয়নের নবনির্বাচিত মেম্বার উত্তম সরকার হত্যাকা-ে জড়িত থাকার অভিযোগে শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) রাতে ইউনিয়ন যুবলীগ তাকে বহিষ্কার করে।

জানা গেছে, গত সোমবার (১০ জানুয়ারি) রাতে সুন্দলী ইউনিয়নের নবনির্বাচিত মেম্বার উত্তম সরকারকে তার বাড়ির সামনে গুলি করে হত্যা করে সন্ত্রাসীরা। মঙ্গলবার রাতে নিহতের স্ত্রী শ্রাবন্তী সরকার বাদি হয়ে অজ্ঞাতনামা আসামিদের নামে অভয়নগর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। ওই দিন রাতে সুন্দলী ইউনিয়নের ছোট সুন্দলী গ্রামে অভয়নগর থানা ও যশোর জেলা ডিবি পুলিশ যৌথ অভিযান চালিয়ে সন্দেহভাজন হিসেবে বুলেটকে আটক করে। বুলেটের স্বীকারোক্তি মোতাবেক বুধবার গভীর রাতে তাঁর ঘরে তল্লাশি চালিয়ে হত্যাকা-ে ব্যবহৃত অস্ত্রের তিনটি তাজা গুলি উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ব্যাপারে শনিবার দুপুরে সুন্দলী ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি অরূপ মল্লিক ও সাধারণ সম্পাদক পল্লব বিশ্বাস মুঠোফোনে জানান, ইউপি মেম্বার উত্তম সরকার হত্যাকা-ে জড়িত থাকা ও সংগঠন বর্হিভূত কর্মকা-ে সম্পৃক্ততার অভিযোগে ইউনিয়ন যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি প্রজিৎ কুমার বিশ্বাস ওরফে বুলেটকে তার পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। শুক্রবার রাতে ইউনিয়ন যুবলীগের এক জরুরী সভা থেকে তাকে বহিষ্কার করা হয়।

যুবলীগে সন্ত্রাসীদের কোন ঠাঁই নেই বলে উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক মো. তালিম হোসেন মুঠোফোনে জানান, সুন্দলী ইউনিয়ন যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি প্রজিৎ কুমার বিশ্বাস ওরফে বুলেটকে তাঁর পদ থেকে সাময়িক বষ্কিার করা হয়েছে।

শেয়ার