ঘণ কুয়াশায় ক্ষতির মুখে নেংগুড়াহাটের পান চাষিরা

নেংগুড়াহাট (মণিরামপুর) প্রতিনিধি॥ মনিরামপুর উপজেলার নেংগুড়াহাট এলাকায় কয়েক গ্রাম ঘুরে দেখাগেছ ঘন কুয়াশার কারণে পানের বরজ পচে পাতা ঝরে যাচ্ছে। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন পান চাষিও ব্যবসায়ীরা।

খোঁজ নিয়ে জানাগেছে, মনিরামপুর উপজেলার নেংগুড়াহাট এলাকার পারখাজুরা, কাঁঠালতলা, হাজরাকাটি, বেলতলা ও নওয়ালি গ্রামের অনেক পরিবার পান চাষ করে জীবিকা নির্বাহ করে। এর মধ্যে মিজানুরের ১ বিঘা, হাফিজুরের ১৫ কাটা, সিরাজুলের ২ বিঘা এবং মেহেদির দেড় বিঘা জমির পান গত এক সপ্তাহের তীব্র শীতে নষ্ট হতে চলেছে।

পান চাষিও ব্যবসায়ীরা বলছেন, এক বিঘা পান বরজ করতে খরচ হয় অনেক টাকা। সবমিলিয়ে এবার লাভ তো দূরের কথা, উৎপাদনের খরচও উঠবে না। এ ব্যাপারে উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মারুফুল হক ও হাবিবুর বলেন,আমাদের পক্ষ থেকে চাষিদের সর্বাত্মক সহযোগিতা করা হচ্ছে। তাদের পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। পান বরজে বর্তমানে যেসব রোগ-বালাই সংক্রমিত হয়েছে, সে বিষয়ে প্রতিনিয়ত চাষিদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছি। অতিরিক্ত শীতের কারণে এ ধরনের রোগবালাই হচ্ছে। পান বরজের পরিচর্যা করলে এবং শীত কমে গেলে এক সপ্তাহের মধ্যে এ পরিস্থিতির উন্নতি ঘটবে বলে আশা প্রকাশ করছেন তারা।

শেয়ার