দর্শনা হয়ে ভারত গেলো দুই দেশের সাইকেল র‌্যালি

দর্শনা প্রতিনিধি
মহান স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে ভ্রাতৃত্ব এবং পারস্পরিক সম্প্রীতি বৃদ্ধির লক্ষ্যে বাংলাদেশ ও ভারতীয় সেনাবাহিনী মধ্যে যৌথ সাইকেল র‌্যালি শুরু হয়েছে।
সোমবার (১৫ নভেম্বর) এ র‌্যালি শুরু হয়। শুক্রবার (১৯ নভেম্বর) বেলা ১১টার দিকে যৌথ সাইকেল র‌্যালিটি চুয়াডাঙ্গার দর্শনা আন্তর্জাতিক চেকপোস্ট দিয়ে ভারতে প্রবেশ করেছে।
যৌথ সাইকেল র‌্যালিটি এর আগে যশোর, ঝিনাইদহ, কুষ্টিয়া, মেহেরপুর জেলা এবং মুজিবনগর পরিদর্শন শেষে বৃহস্পতিবার চুয়াডাঙ্গাতে যায়। চুয়াডাঙ্গা সার্কিট হাউজে রাত্রিযাপন করেন তারা।
শুক্রবার সকাল ৯টার দিকে যৌথ সাইকেল র‌্যালিটি চুয়াডাঙ্গার দর্শনা আন্তর্জাতিক চেকপোস্টে পৌঁছে ইমিগ্রেশন কার্যক্রম শেষ করে। পরে বেলা ১১টার দিকে র‌্যালিটি ভারতে যাত্রা শুরু করে।
এসময় উপস্থিত ছিলেন যশোর সেনানিবাসের ৫৫ পদাতিক ডিভিশনের কর্নেল মো. মুহতাসিম হায়দার চৌধুরী। র‌্যালিতে অংশগ্রহণকারীরা ভারতীয় অংশে প্রবেশ করলে ভারতীয় সেনাবাহিনীর ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সতেজ ত্রিবেদী তাদের অভর্থ্যনা জানান।
র‌্যালিটি ভারতের অভ্যন্তরে প্রবেশ করে কৃষ্ণনগর, কল্যাণী, রানাঘাট হয়ে কলকাতায় ফ্লাগইন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে শেষ হবে। যৌথ সাইকেল র‌্যালির বাংলাদেশের ২০ জন সদস্য আগামী ২৬ নভেম্বর বেনাপোল হয়ে দেশে ফিরবেন বলে জানা গেছে।
যশোর সেনানিবাসের স্টাফ অফিসার মেজর মো. জাকারিয়া জানান, সোমবার (১৫ নভেম্বর) ভারতীয় সেনাবাহিনীর কর্ণেল মুহিত সিংয়ের নেতৃত্বে ১৯ সদস্যের একটি চৌকস দল সাইকেল র‌্যালি নিয়ে যশোর সেনানিবাসে পৌঁছায়। সেখানে ফ্লাগ অব সিরিমনি শেষে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মেজর মাহমুদুল আফজালের নেতৃত্বে ২০ সদস্যের একটি টিম র‌্যালিতে যোগ দেয়।
তিনি আরও বলেন, এই সাইকেলিং অভিযানের মাধ্যমে দুদেশের সেনাবাহিনীর মধ্যে পারস্পরিক সম্পর্ক আরও দৃঢ় হবে বলে আমরা বিশ্বাস করি।

শেয়ার