যশোরে স্কুলছাত্রীকে অপহরণের অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ যশোরে ১৫ বছর বয়সের এক স্কুলছাত্রীকে অপহরণের অভিযোগে থানায় মামলা হয়েছে। এই মামলায় শ্যালক ও ভগ্নিপতিকে আসামি করা হয়েছে। আসামিরা হলো, কুষ্টিয়া ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) থানার পারমিক মিস্ত্রিপাড়ার নাহেদ শেখের ছেলে রুমন এবং তার ভগ্নিপতি কুমারখালি উপজেলার ধলননগর গ্রামের তরিকুল ইসলাম।

যশোর সদর উপজেলার ইসলামপুর গ্রামের বাসিন্দা ওই স্কুল ছাত্রীর পিতার কোতোয়ালি থানায় করা মামলায় উল্লেখ করেছেন, তার মেয়ে আমবটতলা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী। আর আসামিরা তার আত্মীয়। তার মেয়ে স্কুলে যাওয়া-আসার পথে প্রায়ই সময় উত্ত্যক্ত করতো আসামি রুমন। এই উত্ত্যক্তের কাজে সহযোগিতা করতো তার ভগ্নিপতি তরিকুল ইসলাম। প্রেমের প্রস্তাব দিলে তার মেয়ে অস্বীকৃতি জানায়। ফলে তাকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে অপহরণের মতলব আটে। গত ২ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যার দিকে তার মেয়ে ও ছোট ছেলে খাতা কিনতে বাজারে যায়। খাতা কিনে বাড়ি ফেরার পথে আসামিরা বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে একটি ইজিবাইকে করে তার মেয়েকে চুড়ামনকাটির দিকে দিয়ে যায়। এ সময় বাঁধা দিলে তার ছোট ছেলে শাহজালালকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেয়।

এজাহারে আরো উল্লেখ করা হয়েছে, অনেক খোঁজাখুজির পর তিনি মেয়ের খোঁজ জানতে পারেন। যোগাযোগ করা হলে প্রথমে তার মেয়েকে ফেরৎ দেয়ার অশ্বাস দিলেও পরে না দিলে তিনি মামলা করেন।

শেয়ার