শ্রমিকনেতা ফুলু আটক হয় মবিল চুরির অভিযোগে, মোটরসাইকেল চুরির অভিযোগে কারাগারে গেল ছেলে রুমি

14

সীমান্ত রহমান॥ এক সময় মবিল চুরির অভিযোগে পুলিশের হাতে আটক হয়েছিলেন যশোরের পরিবহন শ্রমিক নেতা শেখ হারুনার রশিদ ফুলু। এর কয়েক বছর পরে এবার চুরির অভিযোগে আটক হলেন তার ছেলে রিয়াজ হাসান রুমি। তবে ছেলে মবিল নয়; চুরি করেছেন মোটরসাইকেল। গত বুধবার রাতে সদর উপজেলার হামিদপুর থেকে তাকে ও মাইনুল হোসেন রাহুল নামে একজনকে আটক করা হয়। রাহুল শহরের বারান্দী মোল্যাপাড়া আমতলা এলাকার জাহাঙ্গীর হোসেন স্মরণের ছেলে।

স্থানীয়দের ভাষ্য মতে, শহরের বারান্দীপাড়া এলাকার বাসিন্দা যশোরের পরিবহন শ্রমিক নেতা শেখ হারুনার রশিদ ফুলু। তিনি শ্রমিক নেতৃত্বের আড়ালে বিভিন্ন অপরাধ কর্মকা- করে বেড়ান বলে অভিযোগ রয়েছে। কয়েক বছর পূর্বে ঢাকার এক ব্যবসায়ীর মবিল চুরির অভিযোগে ফুলুকে আটক করে কোতোয়ালি মডেল থানা পুলিশ। তার দখল থেকে চোরাই মবিল উদ্ধার করা হয়েছিল। তাছাড়া অস্ত্রসহ একবার আটক করে পুলিশ তাকে হাতকড়া পরিয়েছিল। এলাকাবাসী বলছেন, বাবার যোগ্য উত্তরসূচিই হয়েছেন ছেলে। বাবা মবিল চুরি করেছিলেন; ছেলে মোটরসাইকেল।

পুলিশ জানিয়েছে, সদর উপজেলার সুলতানপুর গ্রামের শামসুর রহমান গত ৫ আগস্ট মারা যান। মৃত ব্যক্তি আত্মীয় যশোর শহরের আরএন রোড নতুন বাজার এলাকার ইব্রাহিম এবং মাজহারুল ইসলামে দুই জন জানাজায় শরিক হন। কিন্তু জানাজা শেষ না হতেই ইব্রাহিম ও মাজহারুল দেখেন তাদের ব্যবহৃত মোটরসাইকেল দুইটি নেই। গত ৩১ আগস্ট এই ঘটনায় ইব্রাহিমের দায়ের করা মামলায় গত বুধবার রাতে সুলতানপুর থেকে রুমি এবং তার সহযোগী মাইনুল হোসেন রাহুলকে আটক করে। বৃহস্পতিবার তাদের দুইজনকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করেছেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা চানপাড়া পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ এসআই কাওছার আলম।