গ্রিসে বাধ্যতামূলক টিকাদানের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ, সংঘর্ষ

সমাজের কথা ডেস্ক॥ গ্রিসের পুলিশ বাধ্যতামূলক কোভিড-১৯ টিকাদানের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখাতে এথেন্সের কেন্দ্রস্থলে জড়ো হওয়া কয়েক হাজার লোককে ছত্রভঙ্গ করতে কাঁদুনে গ্যাস ও জলকামান ব্যবহার করেছে।

শনিবার গ্রিক পার্লামেন্টের বাইরে চার হাজারেরও বেশি বিক্ষোভকারী স্বাস্থ্যসেবা ও নার্সিংকর্মীসহ বিভিন্ন খাতের কর্মীদের বাধ্যতামূলক টিকা নেওয়ার নির্দেশের বিরুদ্ধে সমাবেশ করেছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

এ নিয়ে চলতি মাসেই গ্রিক পার্লামেন্টের বাইরে এ ধরনের তৃতীয় সমাবেশ হল।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পুলিশ কর্মকর্তা জানান, কিছু বিক্ষোভকারী পুলিশের দিকে পেট্রল বোমা ছোড়ার পর পুলিশ তাদের লক্ষ্য করে কাঁদুনে গ্যাস ছোড়ে।

এর আগে বুধবারের সমাবেশেও এথেন্সে সহিংসতার ঘটনা ঘটেছিল।

গ্রিসের অধিকাংশ নাগরিকই কোভিড-১৯ প্রতিরোধে টিকা নিতে ইচ্ছুক বলে সাম্প্রতিক বেশ কয়েকটি জরিপে দেখা গেছে।

গত বছর মহামারী শুরুর পর করোনাভাইরাস এ পর্যন্ত ইউরোপের এ দেশটির ১২ হাজার ৮৯০ জনের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে।

এক কোটি ১০ লাখ জনসংখ্যা অধ্যুষিত গ্রিসের প্রায় ৪৫ শতাংশ নাগরিক এরই মধ্যে টিকা নিয়ে নিয়েছেন বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

শনাক্ত কোভিড রোগীর সংখ্যা বাড়তে থাকায় সরকার স্বাস্থ্যসেবা ও নার্সিং হোমকর্মীদের টিকাদানের নির্দেশ দিয়েছে; সেপ্টেম্বরে শিক্ষাবর্ষ শুরু হওয়ার আগে স্কুল শিক্ষকদেরও টিকা নিয়ে নেওয়ার আহ্বান জানানো হয়েছে।

শনিবার গ্রিসে আড়াই হাজারের কাছাকাছি নতুন কোভিড রোগী শনাক্ত হয়েছে; সব মিলিয়ে এখন পর্যন্ত দেশটির চার লাখ ৭৪ হাজার ৩৬৬ জনের দেহে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের উপস্থিতি শনাক্ত হয়েছে।

শেয়ার