যশোরে উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তাদের পারিবারিক পুষ্টি বাগান স্থাপন বিষয়ক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ যশোরে উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তাদের নিয়ে অনাবাদি পতিত ও বসতবাড়ির আঙ্গিনায় পারিবারিক পুষ্টি বাগান স্থাপন বিষয়ক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার যশোর শহরের খয়েরতলা হর্টিকালচার সেন্টারে দুই দিনের এই প্রশিক্ষণের সমাপনী অনুষ্ঠিত হয়। এতে যশোরের আট উপজেলার ৩০ জন উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা অংশ নেন।

সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর যশোরের উপ-পরিচালক বাদল চন্দ্র বিশ^াস বলেন, কৃষি উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষ্যে অনাবাদি পতিত ও বসতবাড়ির আঙিনায় পারিবারিক পুষ্টি বাগান স্থাপন প্রকল্প হাতে নিয়েছে সরকার। প্রকল্পটি পারিবারিক পর্যায়ে বসতবাড়ির আঙিনা, পুকুর পাড়সহ অব্যবহৃত জমিতে উন্নত কৃষি প্রযুক্তির বিস্তার ঘটিয়ে বৃহত্তর জনগোষ্ঠীর আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন করবে। সেই সাথে পুষ্টিরও যোগান দিবে।

২০২০-২০২১ অর্থ বছরে অনাবাদি পতিত জমি ও বসতবাড়ির আঙ্গিনায় পারিবারিক পুষ্টি বাগান স্থাপন প্রকল্পের আওতায় দুই দিন ব্যাপী এই প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়। শহরের খয়েরতলায় অবস্থিত হর্টিকালচার সেন্টারের প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের যশোর কার্যালয় এই প্রশিক্ষণের আয়োজন করে। প্রশিক্ষণের সমাপনী দিনের অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন অধিদপ্তরের যশোর অফিসের জেলা প্রশিক্ষণ কর্মকর্তা বিরেন্দ্রনাথ মজুমদার। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন অতিরিক্ত উপপরিচালক (শস্য) দীপঙ্কর দাশ।

প্রধান অতিথি আরো বলেন, প্রকল্পটি সারা দেশের ৫ লাখ ৩ হাজার ১৬০ কৃষক পরিবারের বছর ব্যাপী পুষ্টির চাহিদা পূরণের লক্ষে সবজি ও মসলা জাতীয় ফসল উৎপাদন সহায়তা করবে। ফলে কৃষি উন্নয়নে পিছিয়ে পড়া দরিদ্র জনগোষ্ঠীর খাদ্য ও পুষ্টির নিরাপত্তা নিশ্চিত হবে।

প্রশিক্ষণের আয়োজক সূত্র জানায়, প্রকল্পটি সফলভাবে বাস্তবায়নের লক্ষে কৃষকদেরও পরবর্তীতে এই প্রশিক্ষণের আওতায় আনা হবে। যাতে সরকারের এই উদ্দেশ্যও সফল হয় এবং কৃষকরাও আর্থিকভাবে ও পুষ্টির দিক বিবেচনায় লাভবান হন।

শেয়ার