প্রতিবন্ধী ব্যবসায়ীকে মারপিট ও টাকা ছিনতাই যবিপ্রবির বাদলসহ ৯ জনের নামে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মচারী বাদলসহ ৯ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। আব্দুল আজিজ নামে প্রতিবন্ধী এক ব্যবসায়ীকে মারপিট ও ৬৫ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনায় এই মামলা হয়েছে। শনিবার গভীর রাতে সদর উপজেলার শ্যামনগর গ্রামের মৃত কাদের বক্স বিশ্বাসের ছেলে ভুক্তভোগী আব্দুল আজিজ এই মামলা করেন।
আসামিরা হলো, শ্যামনগর গ্রামের আশাড়ের ছেলে এবং যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মচারী বাদল হোসেন, একই গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে টিপু, মহিউদ্দিন মহির ছেলে বাবু, আফতাবের ছেলে শাহিন, সিরাজের ছেলে বাবু, কোবাদ আলীর ছেলে কওছার আলী, ছাতিয়ানতলা গ্রামের দাউদ আলী দফাদারের দুই ছেলে রাসেল ও রক্সি এবং আব্দুস সবুর মেম্বর।
বাদী মামলায় উল্লেখ করেছেন, আসামিরা এলাকার চাঁদাবাজ, বোমাবাজ ও সন্ত্রাসী প্রকৃতির লোক। তাদের সাথে বাদীর পূর্ব শত্রুতা রয়েছে। সে কারণে বেশ কিছুদিন ধরে বাদী আজিজুলের ক্ষতি করার জন্য সুযোগ খুঁজতে থাকে। তারই জের ধরে গত ১২ নভেম্বর রাত সাড়ে ৮টার দিকে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের পশ্চিম পাশ থেকে পায়ে হেটে বাড়ির উদ্দেশ্যে যাচ্ছিলেন। জগহাটি বাওড়ের রাস্তা নামক স্থানে পৌছানো মাত্র আসামিরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে দেশিয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে আজিজুলের পথরোধ করে। এসময় বাদলের নেতৃত্বে তার উপর হামলা করে মারপিট এবং কাছে থাকা ব্যবসায়ীক ৬৫ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়। এসময় আজিজুলের চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এলে তারা পালিয়ে যায়। এই ঘটনায় থানায় মামলা করা হলেও কোন আসামি আটক হয়নি।

 

শেয়ার