মাদক বিক্রিতে বাধা দেয়ায় যশোর পৌর ৫ নম্বর ওয়ার্ড আ’লীগ অফিস ভাঙচুর

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ মাদক বিক্রিতে বাধা দেয়ায় হামলা চালিয়ে যশোর পৌর ৫ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ অফিস এবং ট্রাক শ্রমিক ইউনিয়ন অফিস ভাংচুর করেছে সন্ত্রাসীরা। মঙ্গলবার বিকেলে যশোর শহরের খড়কি গাজীর বাজার এলাকায় চিহ্নিত সন্ত্রাসী নাজিম হোসেন বাহাদুরের নেতৃত্বে এই ঘটনা ঘটে।
স্থানীয়রা জানিয়েছে, শহরের পৌর ৫ নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির সহসভাপতি ফারুক হোসেন। তার বাড়ি খড়কি হাজামপাড়া এলাকায়। আর তার ছেলে নাজিম হোসেন বাহাদুর সাবেক পরিবহন শ্রমিক নেতা। দীর্ঘদিন ধরে বাহাদুরের নেতৃত্বে তার পোষা একদল সন্ত্রাসী ফেনসিডিল, ইয়াবাসহ নানা ধরনের মাদকের কারবার করে আসছিল। বাহাদুরের সেল্টারে দীর্ঘদিন এলাকার ইমরান হোসেন, মুস্তাকিম হোসেন, জাহিদ হোসেন, হৃদয় হোসেন ও সজিব হোসেনসহ উঠতি বয়সের আরো কিছু যুবক খড়কি গাজীর বাজারে পৌর ৫ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ অফিসের সামনে এই মাদকের কারবার করে। পার্টি অফিসের পাশে মাদক বিক্রিতে তাদের নিষেধ করে একই এলাকার এলাহী আল মামুন নামে এক যুবক। এতে ওই মাদক কারবারীরা এলাহীর উপর ক্ষিপ্ত হয়। গত ৩১ অক্টোবর সকালে বাহাদুরের নেতৃত্বে ওই মাদক কারবারীরা এলাহীকে মারপিট করে। এই ঘটনায় এলাহী বাদী হয়ে ওই সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে কোতোয়ালি মডেল থানায় অভিযোগ করেন। এতে তারা আরো ক্ষিপ্ত হয়। এক পর্যায় গতকাল মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে এলাহীসহ দলীয় কয়েকজন যুবক আওয়ামী লীগ অফিসে বসে ছিলেন। এসময় বাহাদুরের নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ অফিস এবং ট্রাক শ্রমিক ইউনিয়ন অফিসে হামলা করে। এক পর্যায়ে অফিস ভাংচুর করে এবং অফিসে থাকা লোকজনদের মারপিট করে।

শেয়ার