ফুলেল শুভেচ্ছা আর হৃদয়ছোঁয়া ভালোবাসায় সিক্ত এমপি শাহীন চাকলাদার

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ বিকাল ৩ টা বেজে ১৪ মিনিট। শহরের ঐতিহাসিক টাউন হল ময়দানে যশোরের মানুষের আশা আকাক্সক্ষার প্রতীক তরুণনেতা শাহীন চাকলাদার প্রবেশ করেন। এ সময় হাজারো মানুষের করতালি; সেইসঙ্গে ‘শাহীন ভাই, শাহীন ভাই’ স্লোগানে স্লোগানে মুখরিত পুরো ময়দান। এরই মাঝে সাংস্কৃতিক সংগঠন ভৈরবের শিল্পীদের নৃত্যের তালে তালে হতে থাকে পুষ্পবর্ষণ। এ সময় শাহীন চাকলাদার হাত উঠিয়ে জনতার শুভেচ্ছার জবাব দেন। আর বক্তব্যের পালা শেষে বিভিন্ন সংগঠন আর নানা শ্রেণিপেশার মানুষের ফুলেল শুভেচ্ছা আর হৃদয় নিংড়ানো ভালোবাসায় সিক্ত হলেন ‘জনমানুষের এই নেতা’। এভাবেই গতকাল ফুলেল শুভেচ্ছায় সংবর্ধিত হন এই মাটি ও মানুষের গর্বিত সন্তান যশোর-৬ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের সময় বিকাল ৩ টা। তবে দুপুর দেড়টা থেকেই টাউন হল ময়দানে আসতে শুরু করেন শহরের নাগরিকরা। কারো হাতে ফুলের তোড়া, কারও মাথায় শাহীন চাকলাদারের স্টিকার বাধা। সবারই চোখে-মুখে আনন্দের বার্তা, সর্বত্র সাজ সাজ রব, শাহীন চাকলাদারের ছবি সম্বলিত ব্যানার-ফেস্টুন-প্ল্যাকার্ডে ঝলমল করছিল পুরো টাউন হল ময়দানসহ পাশের বিভিন্ন সড়ক ও অলিগলি। এ সবটাই যশোরের উন্নয়নের কারিগর তরুণ রাজনীতিবিদ শাহীন চাকলাদারকে ঘিরে। যশোরের নাগরিক কমিটি আয়োজন করে এ গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানের। জমকালো এই আয়োজনকে ঘিরে গতকাল উৎসবের শহরে পরিণত হয় যশোর। এদিন যশোরের বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষ এই নেতাকে সম্মান দেখাতে ও যশোরের উন্নয়ন ও অবহেলিত মানুষের সেবা করার অনুপ্রেরণা দিতে সংবর্ধনায় যোগ দেন। ভক্তদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে সংবর্ধনা অনুষ্ঠান জনসমুদ্রে রূপান্তরিত হয়।

বক্তারা তাদের আলোচনায় শাহীন চাকলাদারের জীবনী ও তার রাজনৈতিক জীবন এবং এ জেলার বিভিন্ন সংকটে তার কর্মকাণ্ড তুলে ধরে ভুয়সী প্রশংসা করেন। অনুষ্ঠানের শেষ প্রান্তে নাগরিক কমিটির নেতৃবৃন্দ প্রিয় নেতাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানোর সুযোগ করে দেন। এসময় প্রকৌশলী, চিকিৎসক, কৃষিবিদ, ডিপ্লোমা প্রকৌশলী, আইনজীবী, সাংবাদিক, শিক্ষক, ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব, সাংস্কৃতিক কর্মী, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ, পূজা উদযাপন পরিষদ, নারী সংগঠন এবং মুক্তিযোদ্ধা সংসদসহ বিভিন্ন শ্রেণীর মানুষ এই নেতাকে ফুলের শুভেচ্ছা জানান। এ সময় শাহীন চাকলাদারের ভক্ত-সমর্থকদের উচ্ছ্বাস থামাতে পুলিশ ও স্বেচ্ছাসেবকদের হিমশিম খেতে হয়। ফুলের শুভেচ্ছা জানান, পৌর মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টুর নেতৃত্বে যশোর পৌর পরিষদ, সহসভাপতি কাসেদুজ্জামান সেলিমের নেতৃত্বে যশোর ইনস্টিটিউট পরিচালনা পরিষদ, ভারপ্রাপ্ত সভাপতি তারিকুল ইসলাম তারু, সাধারণ সম্পাদক সানোয়ার আলম খান দুলু, কেন্দ্রীয় সদস্য সুকুমার দাসসহ বিভিন্ন নেতৃবৃন্দ’র নেতৃত্বে যশোর জেলা সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট ও সাংস্কৃতিক সংগঠন, ডা. কেএম কামরুল ইসলাম বেনু ও এম বাশারের নেতৃত্বে বাংলাদেশ মেডিকেল এ্যাসোসিয়েশন যশোর শাখার নেতৃবৃন্দ, সাবেক জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মুক্তিযোদ্ধা মুজহারুল ইসলাম মন্টু, যশোর মিনিবাস ও বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক অসীম কুন্ডু’র নেতৃত্বে নেতৃবৃন্দ, জাতীয় ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প সমিতির যশোর জেলা শাখার সভাপতি সাকির আলী, যশোর সিটি ক্যাবল লিমিটেড, যশোর জেলা জুয়েলারী সমিতি, জেলা ওম্যান চেম্বার অব কমার্স, যশোর ইঞ্জিনিয়ারিং শিল্প মালিক সমিতি, ইন্সটিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার বাংলাদেশ যশোর জেলা শাখার নেতৃবৃন্দ, বাঘারপাড়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নিহত মরহুম নাজমুল ইসলাম কাজলের পক্ষে উপজেলাবাসী, বঙ্গবন্ধু ডিপ্লোমা প্রকৌশলী পরিষদ, সিটি প্লাজা যশোর, ভোরের সাথী যশোর স্বাস্থ্য সচেতন নাগরিক সংগঠন, সেক্টর কমান্ড ফোরাম মুক্তিযোদ্ধা-৭১, জেলা পূজা পরিষদ, জেলা পুস্তুক ব্যবসায়ী সমিতি, জেলা ক্রীড়া সংস্থা, স্বাধীনতা সরকারী চাকরিজীবী যশোর পরিষদ, বাংলাদেশ দলিত ও বর্ধিত জনগোষ্ঠী অধিকার আন্দোলন, শাশ^ত দলিত নারী ও শিশু উন্নয়ন সমিতি, সনাতন ধর্মসংঘ যশোর শাখা, যশোর পুরাতন লোহা ও মটর পার্টস মালিক কল্যাণ সমিতি, যশোর টায়ার ব্যবসায়ী সমিতি, পুরাতন লোহা ও প্লাস্টিক ব্যবসায়ী সমিতি, সৌখিন ক্রীড়াচক্র যশোর, জজকোর্ট মসজিদ মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতি, যশোর ফুটবল খেলোয়াড় সংগঠন, জেস টাওয়ার ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতি, যশোর ইলেক্ট্রনিক ব্যবসায়ী সমিতি, স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদ যশোরের নেতৃবৃন্দ, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড যশোর জেলা শাখা, মুসলিম একাডেমী স্কুল, ফিটনেস লাইফ মাল্টি জিম, সুরবিতান সংগীত নিকেতন, যশোর বড়বাজার ব্যবসায়ী সমিতি, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড যশোর জেলা শাখার সভাপতি ইমতিয়াজ আহম্মেদ মুন, অনুশীলন সামাজিকসংঘ, বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতি যশোর জেলা শাখা, নতুনহাট পাবলিক কলেজ, যশোরস্থ কেশবপুর সমিতি, সদর উপজেলা শিক্ষক সমিতি, হোমিওপ্যাথি চিকিৎসক ও পেশাজীবী সংগঠন, যশোর শিল্পীগোষ্ঠী, জয়তী সোসাইটি, বেজপাড়া তালতলা মোড় বাজার কমিটি, যশোর জেলা ইউনিয়ন পরিষদ ফোরামের নেতৃবৃন্দ, মণিরামপুর উপজেলা আওয়ামী লীগ, অভয়নগর উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ, পুলিশিং কমিটি যশোর ফোরাম, বাংলাদেশ ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন যশোর, বড়বাজার আড়ৎ সমিতি কাঁচাবাজার, সিদ্দিপাশা ইউনিয়ন পরিষদ, মুক্তিযোদ্ধা আমীর হোসেন পাটোয়ারী, কেশবপুর ত্রিমহোনী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, বাংলাদেশ কেমিস্ট এন্ড ড্রাগিস্ট সমিতি, বঙ্গবন্ধু ডিপ্লোমা কৃষিবিদ পরিষদ যশোর জেলা শাখা, যশোর জেলা পরিবহন সংস্থা শ্রমিক ইউনিয়ন, ঝিকরগাছা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মনিরুল ইসলাম, মোমিননগর ইউনিয়নের পক্ষে শাহরিয়ার আলম খান কাবিল, মশ্মিমনগর ইউনিয়নের পার খাজুরার পক্ষে, অভয়নগর উপজেলা আওয়ামী লীগ, যশোর জেলা মৎস্যজীবীলীগের নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন সামজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

শেয়ার