মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিতে মোবাইল কোর্ট পরিচালনার নির্দেশ

সমাজের কথা ডেস্ক॥ করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে ঘরের বাইরে সবার মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিত করতে জোর দিয়েছে মন্ত্রিসভা। সবার মাস্ক পরা নিশ্চিত করতে সচেতনতামূলক পদক্ষেপের সঙ্গে প্রয়োজনে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে আইন প্রয়োগ করতে মাঠ প্রশাসনকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সোমবার মন্ত্রিসভার ভার্চুয়াল বৈঠকে মাস্ক ব্যবহার নিয়ে আলোচনা হয় বলে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম জানিয়েছেন।

সচিবালয়ে এক ব্রিফিংয়ে তিনি বলেন, “আমরা দেখছি ইউরোপ-আমেরিকায় (আবার করোনাভাইরাসের) ব্যাপক প্রাদুর্ভাব দেখা যাচ্ছে। সেজন্য প্রধানমন্ত্রী বিশেষভাবে নজর দিয়েছেন, সবাই যাতে কেয়ারফুল থাকি, সবাই যেন মাস্ক ইউজ করি। বাকি কি হবে না হবে সেটা আনসার্টেইন বিষয়।

“মাস্ক যদি আমরা সবাই ব্যবহার করি, তাহলে অটোমেটিক আমাদের ইনফেকটেড হওয়ার সম্ভবনা কমে আসে। এজন্য মানুষকে আরও বেশি করে সচেতন করতে হবে, অনেকের মধ্যে একটু শিথিল ভাব দেখা যাচ্ছে।”
করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে গত জুলাই মাসের শেষ দিকে বাসার বাইরে সব জায়গায় সবার মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করে সরকার। অতি সংক্রামক এই ভাইরাস প্রতিদিনই মানুষের মৃত্যু ডেকে আনলেও নানা অজুহাতে এখনও অনেকে মাস্ক ব্যবহার করছেন না।
পাবলিক প্লেসে কোনোভাবেই মাস্ক ছাড়া যাওয়া যাবে না জানিয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, মসজিদ, জনসমাগম স্থল, বা সামনে দুর্গাপূজা আসছে, সেসব জায়গায় কোনোভাবেই কেউ যেন মাস্ক ছাড়া না যান, তা নিশ্চিত করা হবে।
“প্রধানমন্ত্রী এবং মন্ত্রিসভা আশা প্রকাশ করেছেন, সবাই সচেতন হয়ে মাস্ক ব্যবহারে আরেকটু বেশি মনযোগী হবেন, তাহলে অটোমেটিক্যালি আমরা এটা থেকে একটু রিলিফ পাব। মন্ত্রিসভার নির্দেশনা হচ্ছে, সবাই যেন মাস্ক ব্যবহার করি।”
রোববার কমিশনার সম্মেলন ছিল জানিয়ে আনোয়ারুল বলেন, “সেখানে আমরা ক্লিয়ার ইন্স্ট্রাকশন দিয়ে দিয়েছি। ইসলামিক ফাউন্ডেশনকে আমরা বলে দিয়েছে তারা যেন ইমামদের মাধ্যমে প্রতিদিন জোহর ও মাগরিবের নামাজের পরে মাইক বা জামায়াতের সময় বলে দেয়। বাজার, মার্কেট বা গণজমায়েতে যেখানে হয়, সেসব জায়গায় যেন একটা স্লোগানের মত থাকে- অনুগ্রহ করে মাস্ক ছাড়া কেউ প্রবেশ করবেন না।
“মোবাইল কোর্ট ব্যবহারের নির্দেশনা কমিশনারদের দেওয়া হয়েছে। যেভাবে যতটুকু সম্ভব মানুষকে সব জায়গায় রিকোয়েস্ট করে, মোটিভেট করে বা ফোর্স করে যদি করতে হয়, আইন প্রয়োগ করতে হলে আইনও প্রয়োগ করবে, অসুবিধা নেই।”

শেয়ার