যশোর সদর উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী দিনভর গণসংযোগ ও পথসভা অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ যশোর সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনে দিন যতই এগিয়ে আসছে নির্বাচনী প্রচার প্রচারণা ততই বেড়েই চলছে। ভোটারদের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে প্রতিটি গলি ছেয়ে গেছে আওয়ামী লীগের পোস্টার, ব্যানার আর ফেস্টুনে। প্রতিদিনই বিভিন্ন গ্রামে নির্বাচনী কর্মীসভায় যোগ দিচ্ছেন আওয়ামী লীগের প্রার্থী নুর জাহান ইসলাম নীরা। নিজ দলের নির্বাচনী পরিচালনা কমিটির নেতৃবৃন্দদের সাথে নিয়ে বাড়ি-বাড়ি, পাড়া-মহল্লা, হাটবাজার ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে গিয়ে লিফলেট হাতে সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত ভোট চেয়ে বেড়াচ্ছেন তিনি। প্রচারণায় সামিল হচ্ছেন নিজ নিজ দলের সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন স্তরের নেতৃবৃন্দ। নির্বাচিত হতে দলের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সূচি অনুয়ারী শুরু করছে প্রচার-প্রচারণা ও কর্মী সমাবেশ।
আওয়ামী লীগের প্রার্থী নুর জাহান ইসলাম নীরা ছুটছেন ভোটারের দ্বারে দ্বারে। প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন আধুনিক উন্নত সুযোগ সুবিধা উপজেলা গড়ার। নির্বাচনে জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী তিনি। তবে, ভোটাররা বলছেন সৎ ও যোগ্য প্রার্থীকেই বেছে নেবেন তারা। এ দিকে গত দুই দিনের বৃষ্টিতে নষ্ট হওয়া পোস্টার আবারও নতুন ভাবে টাঙাতে শুরু করেছে আওয়ামী লীগের প্রার্থীর কর্মী সমার্থকরা। নির্বাচনী আচারণবিধি মোতাবেক দুপুর থেকে শহর থেকে গ্রামের রাস্তাঘাট, অলিগলি ও পাড়া-মহল্লায় প্রচার হচ্ছে নৌকার স্লোগান।
এ দিকে বৃহস্পতিবার সকালে যশোর সদর উপজেলা আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিলের ব্যক্তিগত কার্যালয়ে ছাত্রলীগ নেতা ইমরানের আয়োজনে নির্বাচনী আলোচনা সভায় যোগদান করেন। এর পরেই স্থানীয় ছাত্রলীগ, যুবলীগ ও সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দদের সাথে নিয়ে যশোর শহরের চুয়াডাঙ্গা ও বড় বাজারে নির্বাচনী গণসংযোগ করেন। এসময় বাজারে আসা ভোটারদের সাথে মতবিনিময় ও ভোট প্রার্থনা করেন। এসময় ভোটাদের মাঝে প্রতিশ্রুতি দিচ্ছে উন্নয়নের। এর পরেই জেলা যুবলীগের আয়োজনে জেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে নির্বাচনী আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন। এসময় জেলার যুবলীগ নেতৃবৃন্দকে নৌকা প্রতীকের পক্ষে ভোটাদের মাঝে প্রচার চালানোর অনুরোধ করেন। বিকালে যশোর উপশহর বি-ব্লক আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে মতবিনিময় সভা করেন। সভা শেষে বি-ব্ল এলাকায় গণসংযোগ ও লিফলেট বিতরণ করেন। এসময় তার সাথে উপস্থিত ছিলেন উপশহর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এহসানুল রহমান লিটু, আওয়ামী লীগ নেতা মুনচুর আলী, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা সুখেন মজুমদারসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ। বিকালে জেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে সদর উপজেলা ও পৌর ছাত্রলীগের আয়োজনে নির্বাচনী আলোচনা সভা যোগ দেন। সেখানে সদর ও পৌর ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দকে নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করতে এবং নির্বাচনে মাঠে থাকার অনুরোধ করেন। সন্ধ্যায় নরেন্দ্রপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আয়োজনে নির্বাচনী মতবিনিময় সভা ও প্রচার-প্রচারণা চালিয়েছেন। ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল কাশেমের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহিত কুমার নাথ, সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান শাহারুল ইসলাম, সদর উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক অশোক বোস, ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মোদাচ্ছের আলীসহ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ। সেখানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে নুর জাহান ইসলাম নীরা বলেন, আওয়ামী লীগের সরকারেই সম্প্রীতির বাংলাদেশ গড়ে তুলেছে। সরকারের যে উন্নয়ন হয়েছে সেটা অন্য সরকারের আমলে হয়নি বলে তিনি জানান। তিনি নৌকায় ভোট চান আর তার জন্য দোয়া প্রার্থনা করেন কাশিমপুর ইউনিয়ন বাসীর কাছে। তিনি বিজয়ী হলে এলাকায় মাদকসহ অন্যান্য অপরাধমূলক সামাজিক যে ব্যাধি রয়েছে, সেগুলো দূর করা হবে প্রতিশ্রুতি দেন। এদিন একই রাতে পুলের হাট কৃষ্ণমাটি এলাকায় আরবপুর ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের মহিলা আওয়ামী লীগ নেত্রী সালমা পারভীন কেয়ার সভাপতিত্বে নির্বাচনী মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পদে নৌকা প্রতীকের প্রাথী নুর জাহান ইসলাম নীরা, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহিত কুমার নাথ, সাধারণ সম্পাদক শাহারুল ইসলাম।

শেয়ার