প্রেসক্লাব যশোর মিলনায়তনে প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত
৯ অক্টোবর সংসদ সদস্য শাহীন চাকলাদারকে নাগরিক সংবর্ধনা

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ যশোরের উন্নয়ন ও সেবামূলক কর্মকা-ে নিবেদিতপ্রাণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার যশোর-৬ (কেশবপুর) সংসদীয় আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ায় নাগরিক সংবর্ধনা দেওয়া হবে। আগামী ৯ অক্টোবর যশোরের ঐতিহাসিক টাউন হল ময়দানে যশোরের নাগরিক সমাজের উদ্যোগে তাকে নাগরিক সংবর্ধনা দেওয়া হবে। এ উপলক্ষে শুক্রবার রাতে প্রেসক্লাব যশোর মিলনায়তনে সংবর্ধনার প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রস্তুতি সভায় নাগরিক সমাজের বিভিন্ন স্তরের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। এসময় বক্তারা বলেন, শাহীন চাকলাদার বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন কর্মকা-ে নেতৃত্ব দিয়ে চলেছেন। যশোরে উন্নয়ন ও সম্ভাবনাকে এগিয়ে নিতে আগামীতেও সংসদে কথা বলবেন। বক্তারা আরো বলেন, সংসদ সদস্য না হলেও অতীতে জনগণের সেবা করেছেন শাহীন চাকলাদার। বিভিন্ন ধর্মীয় অনুষ্ঠানসহ সামাজিক, সাংস্কৃতিক কর্মকা- ও সমাজবির্নিমাণে তিনি কাজ করছেন। মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য তিনি জনগণের পাশে দাঁড়িয়েছেন। তাই নাগরিক সমাজ এই তরুণ সমাজসেবী রাজনীতিবিদকে সংবর্ধনা দেওয়া উচিত বলে মনে করছে। আর এই সংবর্ধনা তাকে যশোরের উন্নয়ন ও অবহেলিত জনগণের পাশে দাঁড়ানোর অনুপ্রেরণা যোগাবে।

নাগরিক সংবর্ধনা কমিটির সদস্য সচিব হারুন অর রশিদের পরিচালনায় ও আহ্বায়ক অধ্যক্ষ সুলতান আহমেদের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন জেলা নাগরিক আন্দোলনের আহ্বায়ক মাস্টার নূরজালাল, মুক্তিযোদ্ধা আলী হোসেন মনি, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ইয়াকুব কবির, জেলা বাস মালিক সমিতির সভাপতি আলী আকবর, প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন। আরো বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান এস এম আফজাল হোসেন, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আসাদুজ্জামান আসাদ, নাসিবের সভাপতি সাকের আলী, জেলা মটর পার্টস ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মানোয়ার হোসেন, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক সানোয়ার আলম দুলু, পৌরসভার কাউন্সিলর মুস্তাফিজুর রহমান মুস্তা, যশোর সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি সাজেদ রহমান বকুল, পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক যোগেশ দত্ত, সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর শেখ রোকেয়া পারভীন ডলি। প্রস্তুতি সভায় সবার সম্মতিক্রমে শিক্ষাবিদ অধ্যক্ষ সুলতান আহমদকে আহ্বায়ক ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব হারুন অর রশিদকে সদস্য সচিব করে ১০১ সদস্য বিশিষ্ট নাগরিক সংবর্ধনা কমিটি গঠন করা হয়।

শেয়ার