যশোরে গত পাঁচ দিনে নতুন ৪ জন করোনা রোগী

 ১৩ জনের করোনা জয়

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ যশোর ঈদুল ফিতরের পাঁচ দিনের ছুটিতে জেলায় নতুন করে ৪ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। খুলনা মেডিকেল কলেজে ও যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিদ্যালয়ের ল্যাবে সর্বমোট ১৩৬টি নমুনা পরীক্ষা করে ওই ৪জনের পজেটিভ রিপোর্ট আসে। এ সময় জেলায় মোট ১৩জন করোনা জয় করেছেন। (২৩ মে থেকে ২৮মে পর্যন্ত স্বাস্থ্য বিভাগ ল্যাব থেকে এই প্রতিবেদন হাতে পান)। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহীন।
এদিকে সিভিল সার্জন অফিসের ডা. রেহেনেওয়াজ বলেন, গেলো পাঁচ দিনের খুলনা মেডিকেল কলেজে ও যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিদ্যালয়ের ল্যাবে সর্বমোট ২৬০টি নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। এর মধ্যে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ ১৩৬টি নমুনা রিপোর্ট হাতে পেয়েছে। তার মধ্যে ৪ জনের পজেটিভ রিপোর্ট আসে। এই নিয়ে জেলায় পজেটিভ বা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১শ’ জনে। এ সময় জেলায় আরও ১৩ জন করোনা জয় করেছেন। এই নিয়ে জেলায় সাংবাদিক, চিকিৎসক, সেবিকা ও স্বাস্থ্যকর্মীসহ সর্বমোট ৬৬ করোনা জয় করেছেন। এদিকে ঈদের ছুটিতে পাঠানো নমুনার মধ্যে ১২৪টি নমুনার প্রতিবেদন এখনো পায়নি জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ।
অপরদিকে, গেলো ২৪ ঘণ্টায় জেলায় হোম ও প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনের আওতায় ৩২ জনকে আনা হয়েছে। এর মধ্যে হোমে ৩১ জন এবং প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে ১ জনকে রাখা হয়েছে। এ ছাড়া গেলো ২৪ ঘণ্টায় ভারত থেকে ৪৩৪ জন দেশে ফিরেছেন। এই মাসে বেনাপোল স্থল বন্দর দিয়ে সর্বমোট ৭ হাজার ৮০৭জন দেশে এসেছে। তাদেরকে শার্শা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও ঝিকরগাছা গাজীর দরগাহ কোয়ারেন্টিনে রেখে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। এছাড়া ১০ মার্চ থেকে ২৮ মে পর্যন্ত জেলায় ৬ হাজার ৬২৯ জনকে হোম ও প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনের আওতায় আনা হয়। এ ব্যাপারে জেলা সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহীন জানান, বর্তমানে জেলায় করোনা পরিস্থিতি উন্নতির দিকে। তবে এখন ঈদের ছুটি শেষ হয়েছে। আর কয়েক দিন অতিবাহিত হলে বুঝা যাবে জেলার করোনা পরিস্থিতি। কারণ এ সময় অনেকে ঈদ করতে ঘরে এসেছিল। তারা আবার চলেও গেছেন। করোনা রেখে গিয়েছেন কি না সেটা বুঝতে আরও ১০দিন সময় লাগবে।

শেয়ার