নিজে নিজেই জীবানুমুক্ত হবে মাস্ক!

সমাজের কথা ডেস্ক॥ করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে এখন মাস্ক ব্যবহার করছেন বিশ্বের বেশির ভাগ মানুষ। বাজারে এসেছে বিভিন্ন ধরনের মাস্ক ও ফেইস শিল্ড। নিজে নিজেই জীবানুমুক্ত হবে নতুন এমন একটি ফেইস মাস্ক আনার পরিকল্পনা করছে এবার চীনা প্রতিষ্ঠান হুয়ামি।

অ্যামাজফিট ব্র্যান্ডের পণ্য বাজারে আনার জন্যই জনপ্রিয় শাওমি সমর্থিত স্টার্টআপ হুয়ামি। এবারে সংকটের এই সময়ে স্বচ্ছ মাস্ক বাজারে আনার পরিকল্পনা করছে প্রতিষ্ঠানটি। নিজে থেকেই জীবানুমুক্ত হওয়ায় দীর্ঘদিন ব্যবহার করা যাবে এই মাস্ক– খবর আইএএনএস-এর।

ইউএসবি পোর্টের মাধ্যমে মাস্কটি পাওয়ার সাপ্লাইয়ের সঙ্গে সংযুক্ত করা হলে, ১০ মিনিট পর পর প্লাস্টিকের মাস্কটিতে লাগানো আল্ট্রাভায়োলেট বাতি দিয়ে ফিল্টারকে জীবানুমুক্ত করা যাবে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ রয়েছে।

স্বয়ংক্রিয়ভাবে জীবানুমুক্ত করার এই প্রযুক্তি শুধু মাস্কের ভেতরের দিকেই সীমিত। বাইরের দিকটা গ্রাহককে নিজেই পরিষ্কার করতে হবে।

মাস্কটির নাম বলা হচ্ছে অ্যায়েরি। এন৯৫ মাস্কের মতোই ফিল্টার ব্যবস্থা থাকবে এতে।

পুরো বিশ্বেই লকডাউন যখন কিছুটা শিথিল হতে শুরু করেছে তখন স্বাস্থ্য ঝুঁকি এড়াতে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছে মাস্ক। আর হুয়ামির এই মাস্কটি স্বচ্ছ হওয়ায় বাড়তি কিছু সুবিধাও রয়েছে।

স্বচ্ছ মাস্কের একটি সুবিধা হতে পারে ফেসিয়াল রিকগনিশন। এর মাধ্যমে মাস্ক না খুলেই ফোন আনলক করতে পারবেন গ্রাহক।

বড় ভোক্তা বাজার লক্ষ্য করেই মাস্কটি আনার লক্ষ্য রয়েছে হুয়ামির। আনুষ্ঠানিক ঘোষণা না আসলেও মাস্কটির দাম প্রতিযোগিতামূলক রাখা হবে বলেই ধারণা করা হচ্ছে।

শুধু করোনাভাইরাস নয় দৈনন্দিন দূষণ থেকেও যাতে মাস্কটি সুরক্ষা দিতে পারে সে লক্ষ্যেই এটি বানানো হচ্ছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

শেয়ার