ক্রীড়া সংস্থা থেকে ৮ উপজেলায় প্রস্তুতি নিতে চিঠি
বঙ্গবন্ধু আন্তঃউপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্টের খবরে স্বস্তি

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ মুজিব বর্ষ উপলক্ষে মার্চের প্রথম সপ্তাহে শামস-উল-হুদা স্টেডিয়ামে গড়াবে ‘বঙ্গবন্ধু আন্তঃউপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্ট’। যশোর জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে অনুষ্ঠিত হচ্ছে টুর্নামেন্ট। এর আগে পরিচালনা কমিটি না থাকায় স্থবির হয়ে পড়েছিলো যশোরের খেলাধুলা। দুই বছর পরে নবনির্বাচিত কমিটির হাত ধরে আবারো ঘরে মাঠে খেলা গড়ানোয় খবর পেয়ে স্বস্তি ফিরেছে ফুটবলারদের মাঝে।
যশোর ক্রীড়া সংস্থা সূত্র মতে, ২০১৮ সালের ১৩ মে সর্বশেষ খেলা মাঠে গড়ায় জেলা ক্রীড়া সংস্থার ব্যবস্থাপনায়। এরপর থেকে নির্বাচন জটিলতায় খেলা মাঠে গড়ায়নি দুই বছর। চলতি মাসের ১২ ফেব্রুয়ারি জেলা ক্রীড়া সংস্থার নির্বাচনে বিজয়ী কমিটির হাত ধরে আবারো মাঠে খেলা ফিরবে এমনটা প্রত্যাশা ছিল সংগঠকদের। সেই প্রত্যাশার প্রতিফলন হিসেবে মুজিব বর্ষ উপলক্ষে মার্চের প্রথম সপ্তাহে শামস-উল-হুদা স্টেডিয়ামে গড়াবে ফুটবল টুর্নামেন্ট। এ টুর্নামেন্টে খেলবে যশোরের ৮ উপজেলার ফুটবলাররা। টুর্নামেন্ট উপলক্ষে গঠন করা হচ্ছে একটি কমিটি। তাছাড়া এ সপ্তাহে খেলা উপলক্ষে মাঠ তৈরি করা হচ্ছে। অন্যদিকে টুর্নামেন্টের চ্যাম্পিয়ন দলকে ট্রফিসহ দেয়া হবে পঞ্চাশ হাজার টাকা এবং রানার্সআপ দলকে দেয়া হবে ট্রফিসহ ত্রিশ হাজার টাকা।
এদিকে ‘বঙ্গবন্ধু আন্তঃউপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্ট’ উপলক্ষে স্টেডিয়ামে সাচ্চু ফুটবল কোচিং সেন্টারে প্রশিক্ষণ নিচ্ছে সদর উপজেলার ফুটবলাররা। সাচ্চু ফুটবল কোচিং সেন্টারের কোচ জয়নাল আবেদীন বলেন, ‘দীর্ঘদিন পর স্টেডিয়াম খেলোয়াড়দের পদচারণায় মুখরিত হয়ে উঠছে। টুর্নামেন্ট উপলক্ষে সদর উপজেলার ফুটবলাররা নিয়মিত প্রশিক্ষণ নিচ্ছে।’
সাধারণ সম্পাদক ইয়াকুব কবির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলেন, গত শনিবার প্রথম সভায় কমিটির সকলের সম্মিলিত সিদ্ধাতে মুজিব বর্ষ উপলক্ষে যশোরের ৮টি উপজেলা নিয়ে আয়োজন করা হচ্ছে বঙ্গবন্ধু আন্তঃউপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্ট। খেলার বাইলজ অচিরেই দেয়া হবে উপজেলাগুলোকে। টুর্নামেন্ট সুন্দর ও স¦ার্থক করা জন্য ফুটবল টিম তৈরি করতে উপজেলা ক্রীড়া সংস্থাকে পত্রের মাধ্যমে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

শেয়ার