চাকরি দেয়ার নামে সাড়ে ২০ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে যশোরে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ বিটিসিএল’এ চাকরি দেয়ার নামে সাড়ে ২০ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে যশোরে আদালতে মামলা হয়েছে। মঙ্গলবার সদর উপজেলার মুনসেফপুর গ্রামের সমর হরির স্ত্রী মিতা হরি বাদী হয়ে দুই সহোদরের বিরুদ্ধে এ মামলা করেন। জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মঞ্জুরুল ইসলাম মামলাটি পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) তদন্ত পূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের আদেশ দিয়েছেন। আসামিরা হলো, খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার পাহাড়পুর গ্রামের বিভীশ বশাকের দুই ছেলে ধীমন বসাক ও সুমন বসাক।
মামলার বিবরণে জানা গেছে, ২০১৪ সালে অর্থনীতিতে মাস্টার্স শেষ করে চাকরির চেষ্টা করছিলেন মুনসেফপুর গ্রামের সমর হরির ছেলে দীগন্ত হরি। আসামিরা তাদের পূর্ব পরিচিত। ধীমন বসাক দিগন্ত হরিকে বিটিসিএল’এ জেলা কর্মকর্তা হিসিবে চাকরি দেয়ার প্রস্তাব দেন। আর এই চাকরি দিতে তাকে ২১ লাখ টাকা দিতে হবে। আর সেই সাথে অপর আসামি সুমন বসাকের প্ররোচনায় ছেলেকে চাকরি দিতে রাজি হন। ওই বছরের ১৪ জানুয়ারি থেকে ২০১৯ সালের ১৮ ডিসেম্বরের মধ্যে চার কিস্তিতে তাকে মোট ২০ লাখ ৫০ হাজার টাকা দেয়া হয়। শর্তানুযায়ী তিন মাসের মধ্যে তাকে চাকরিতে যোগদান করানোর অঙ্গীকার করে। পরবর্তীতে তিন মাস পার হলেও চাকরি দিতে ব্যর্থ হওয়ায় টাকা ফেরত দিতে টালবাহানা করে। গত ২১ ফেব্রুয়ারি আসামিদের বাড়িতে ডেকে এনে টাকা ফেরত চাইলে তারা টাকা দিতে অস্বীকার করে খুন জখমের হুমকি দিয়ে চলে যায়। টাকা আদায়ে ব্যর্থ হয়ে তিনি আদালতে এ মামলা করেছেন।

শেয়ার