শেখ আক্তারুজ্জামান বাচ্চু সভাপতি এমএ মতিন সম্পাদক নির্বাচিত

মো. কামরুজ্জামান, বাগেরহাট॥ বাগেরহাটে সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন সোমবার (৪ নভেম্বর) দুপুরে শহরের স্বাধীনতা উদ্যানে অনুষ্ঠিত হয়েছে। জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্যদিয়ে সম্মেলনের উদ্ধোধন করেন বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ডা. মোজ্জাম্মেল হোসেন এমপি। এরআগে বাগেরহাট সদর উপজেলার ১০টি ইউনিয়নের ৯০টি ওয়ার্ড কমিটি ও ১০টি ইউনিয়ন এর কমিটি সুষ্ঠু ভাবে সম্পন্ন করা হয়। সম্মেলনে কাউন্সিলরদের কন্ঠভোটে আগামী তিন বছরের জন্য বাগেরহাট সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আক্তারুজ্জামান বাচ্চু ও এমএ মতিন সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন।
উৎসবমুখর পরিবেশে বাগেরহাট সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও জাতীয় সংসদের হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ এখনও কর্মীদের টাকায় চলে, নেতার টাকায় নয়। তাই তৃণমূলের কর্মীরা শেখ হাসিনার বাইরে কিছু চিন্তা করে না। তৃণমূল কর্মীরাই আওয়ামী লীগের শক্তি ও প্রাণ। তাই তৃণমূল নেতাকর্মীদের মুল্যায়ন করতে হবে। তিনি আরো বলেন, ‘ব্যক্তিগত মতপার্থক্য থাকতে পারে কিন্তু দলীয় মতাদর্শে এক ও অটুট রেখে শেখ হাসিনা সরকারের উন্নয়নকে জনগণের দোড়গোড়ায় পৌঁছাতে একসাথে কাজ করতে হবে। কোন ভাবেই ব্যক্তিস্বার্থ দলের উপর চাপানো যাবে না।’ মানুষের সাথে ভাল ব্যবহার করতে তিনি আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীদের প্রতি আহবান জানান।
বাগেরহাট সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আক্তারুজ্জামান বাচ্চুর সভাপতিত্বে সম্মেলনে অন্যানের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা এস এম কামাল হোসেন, বাগেরহাট সদরের এমপি শেখ সারহান নাসের তন্ময়, বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ শেখ কামরুজ্জামান টুক, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পৌর মেয়র খান হাবিবুর রহমান, জেলা যুবলীগের আহবায়ক সদর উপজেলা চেয়ারম্যান সরদার নাসির উদ্দিন, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ মতিন, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সরদার ফখরুল আলম সাহেব, মনোয়ার হোসেন টগর, জেলা আওয়ামী লীগের কোষাধ্যক্ষ সরদার সেলিম আহমেদ, জেলা আওয়ামী লীগ সদস্য ও বাগেরহাট প্রেসক্লাবের সাধারন সম্পাদক আলহাজ¦ তালুকদার আব্দুল বাকীসহ সদর উপজেলার বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।

শেয়ার