তুরস্কের সীমান্ত এলাকা ছাড়ার ঘোষণা সিরীয় কুর্দি বাহিনীর

সমাজের কথা ডেস্ক॥ সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে তুরস্কের সীমান্ত থেকে ৩০ কিলোমিটার পর্যন্ত এলাকা থেকে সরে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছে কুর্দি নেতৃত্বাধীন সিরিয়ান ডেমোক্রেটিক ফোর্সেস (এসডিএফ) ।

রোববার এক বিবৃতিতে তারা এ কথা জানানোর পর দামেস্ক এ ঘোষণাকে স্বাগত জানিয়েছে বলে খবর বার্তা সংস্থা রয়টার্সের।

এসডিএফের এ পদক্ষেপের পর তুরস্কের সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে ‘আগ্রাসন’ বন্ধ করা উচিত বলে মন্তব্য করেছে দামেস্ক।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প সিরিয়ার উত্তরাঞ্চল থেকে মার্কিন সেনাদের সরিয়ে নেওয়ার পর সেখানে অবস্থানরত কুর্দি ওয়াইপিজি বাহিনীকে লক্ষ্য করে ৯ অক্টোবর থেকে ওই অঞ্চলে সামরিক অভিযান শুরু করে তুরস্কের সামরিক বাহিনী।

রাশিয়ার সোচিতে ২২ অক্টোবর তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিজেপ তায়িপ এরদোয়ান ও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন একটি সমঝোতা চুক্তিতে পৌঁছান। ওই চুক্তি অনুযায়ী, সিরিয়ার সীমান্ত রক্ষী ও রাশিয়ার সামরিক পুলিশদের ওই সীমান্ত অঞ্চলে সিরিয়ার ভিতরে ৩০ কিলোমিটার পর্যন্ত এলাকা থেকে ছয় দিনের মধ্যে ওয়াইপিজি যোদ্ধাদের সরিয়ে দেওয়ার কথা রয়েছে। মঙ্গলবার ওই সময়সীমা শেষ হবে।

ওয়াইপিজি কুর্দি নেতৃত্বাধীন এসডিএফ বাহিনীর মূল অংশ। এদের সঙ্গে তুরস্কের দক্ষিণপুর্বাঞ্চলে তৎপর কুর্দি বিদ্রোহীদের সঙ্গে সম্পর্ক আছে সন্দেহে আঙ্কারা ওয়াইপিজিকে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে বিবেচনা করে। কিন্তু ইসলামিক স্টেটের (আইএস) বিরুদ্ধে লড়াইয়ে এসডিএফ দীর্ঘদিন ধরে মার্কিন বাহিনীর মিত্র হিসেবে তাদের পাশাপাশি থেকে লড়াই করেছে।

এই এসডিএফ এক বিবৃতিতে বলেছে, “(এরদোয়ান-পুতিন) চুক্তির শর্তানুযায়ী সিরিয়ার উত্তরপূর্বাঞ্চলে তুরস্ক-সিরিয়ার সীমান্ত এলাকা থেকে নতুন অবস্থানে সরে যাচ্ছে এসডিএফ।”

‘রক্তপাত বন্ধ করতে ও ওই অঞ্চলের বাসিন্দাদের তুরস্কের হামলা থেকে রক্ষা করতে’ তারা ওই এলাকাটি থেকে সরে যাচ্ছে বলে এসডিএফ জানিয়েছে।

তারা সিরিয়ার উত্তরপূর্বাঞ্চলের কুর্দি নেতৃত্বাধীন প্রশাসনে ও প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদ সরকারের মধ্যে ‘একটি গঠনমূলক সংলাপ’ নিশ্চিত করতে রাশিয়ার প্রতি আহ্বানও জানিয়েছে।

মস্কো প্রেসিডেন্ট আসাদের ঘনিষ্ঠ মিত্র এবং আট বছর ধরে চলা সিরিয়ার গৃহযুদ্ধের স্রোত আসাদের অনুকূলে নিয়ে আসতে ও দেশটির বিশাল অংশে আসাদের নিয়ন্ত্রণ পুনঃপ্রতিষ্ঠা করতে রাশিয়ার সামরিক শক্তি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে।

সোচির চুক্তি গত কয়েক বছরের মধ্যে এই প্রথম আসাদের বাহিনীকে সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে তুরস্কের সীমান্ত অঞ্চলের কিছু অংশে ফেরার সুযোগ করে দিয়েছে।

শেয়ার