বিশ্বকাপ বাছাই ম্যাচ খেলতে আসছে কাতার

সমাজের কথা ডেস্ক॥ ৫৭ সদস্যের বিশাল বহর নিয়ে বিশ্বকাপ বাছাই ম্যাচ খেলতে বাংলাদেশে আসছে কাতার জাতীয় ফুটবল দল। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বাফুফে সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম সোহাগ। তবে প্রশ্ন উঠেছে কাতারের এ বিশাল বহরের খরচ জোগাতে বাফুফের আর্থিক ক্ষতির বিষয়টি। কিন্তু ফুটবল ফেডারেশন বলছে আর্থিক ব্যয় নিয়ে তাদের সঙ্গে একটি সমঝোতা হয়েছে।
মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) রাতে দলটি বাংলাদেশে আসছে।
২৩ সদস্যের জাতীয় দল। তাদের দেখভালের জন্য ৩৪ জন সদস্য! এমন আলোচিত একটা খবরের শিরোনাম হয়ে বিশ্বকাপ বাছাই ম্যাচ খেলতে বাংলাদেশ আসছে কাতার। তবে কোনো প্রমোদ ভ্রমণে নয়। এ বিশাল বহরে জাতীয় দলের বাইরে যারা রয়েছেন তারা প্রত্যেকেই হয় কোচ, নয়ত ফিটনেস ট্রেইনার অথবা রান্নার দায়িত্বে আছেন।
ঢাকায় পা রাখার পর কাতার দলকে রাখা হবে রাজধানীর একটি পাঁচ তারকা হোটেলে। তাদের পরিবহনের জন্য বরাদ্দ রাখা হয়েছে পাঁচটি বাস। এছাড়াও দলটি পাবে গ্রেড ওয়ানের আরো নানা সুবিধা। তাই প্রশ্ন উঠে তাদের ব্যয় ভার মেটাতে আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে কি না বাফুফে। তবে ফেডারেশন বলছে সবই হবে সমঝোতার মাধ্যমে। যার প্রতিদান বাংলাদেশকে কাতার দেবে অ্যাওয়ে ম্যাচ খেলতে গেলে।
৫৭ সদস্যের দল নিয়ে কাতারের বাংলাদেশে আসার খবরে অনেকের চোখ কপালে উঠলেও, এটাই বাস্তবতা। বিশ্ব ফুটবলে যারা দাপিয়ে বেড়াচ্ছে, তাদের প্রত্যেকেই ভোগ করে এমন সুযোগ-সুবিধা। আর নানা সীমাবদ্ধতার কারণে বাংলাদেশের কাছে এটা বিলাসিতা। তবে বিষয়টি নিয়ে ভাববার সময় এসেছে বলে মনে করছে বাফুফে।
১০ অক্টোবর কাতারের বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের দ্বিতীয় ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। এর আগে প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানের কাছে ১-০ গোলে হেরেছিল লাল-সবুজরা।

শেয়ার