খুলনা রেলওয়ে থানায় গণধর্ষণ ধর্ষণ, ওসিসহ ৫ পুলিশের বিরুদ্ধে মামলা

খুলনা ব্যুরো ॥ খুলনা রেলওয়ে থানায় তরুণীকে দলবেঁধে ধর্ষণের অভিযোগে সাবেক ওসি ওসমান গনি পাঠানসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।
ওই থানায় বর্তমানে ওসির দায়িত্বপ্রাপ্ত এসআই অসীম কুমার দাস জানান, শুক্রবার রাতে ২১ বছর বয়সী ওই তরুণী মামলাটি দায়ের করেন। মামলায় আসামি করা হয়েছে সাবেক ওসি ওসমান গনি পাঠান, এসআই নাজমুল হক ও অজ্ঞাত আরও তিন পুলিশ সদস্যকে। গত ৪ অগাস্ট এই তরুণীকে মাদক মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতে পাঠায় পুলিশ। আদালতে তিনি ওসি ওসমান এবং এসআই নাজমুলসহ পাঁচ পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে দলবেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ করেন। আদালত তার স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে পাঠানোর নির্দেশ দেয়। সোমবার খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার স্বাস্থ্য পরীক্ষা হয়। ঘটনার পর বুধবার ওসমান ও নাজমুলকে খুলনা রেলওয়ে থানা থেকে পাকশি রেলওয়ে পুলিশ লাইন্সে প্রত্যাহার করা হয়। ঘটনা তদন্তে গঠন করা হয় তিন সদস্যের একটি কমিটি। কমিটির প্রধান কুষ্টিয়া রেলওয়ে সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার ফিরোজ আহমেদ বলেন, “বৃহস্পতিবার দুপুরে ওই তরুণীকে জিজ্ঞাসাবাদ করে তদন্ত কমিটি। জিজ্ঞাসাবাদের পর আদালতের নির্দেশে পাঁচ পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।” তবে অন্য তিন পুলিশ সদস্যের নাম বলেননি তিনি। পুলিশ কর্মকর্তা ফিরোজ বলেন, কমিটিকে সাত দিনের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তবে তদন্ত শেষ হতে আরও সময় লাগতে পারে। কমিটির অন্য দুই সদস্য হলেন পরিদর্শক শ ম কামাল হোসেইন ও মো. বাহারুল ইসলাম।

SHARE