যশোরে স্বেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি মান্নান খুনের বিচার হয়নি ৫ বছরেও

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ যশোর শহর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক সভাপতি আব্দুল মান্নানের ৫ম হত্যাবার্ষিকীতে খুনিদের দ্রুত গ্রেপ্তার ও ফাঁসির দাবি করা হয়েছে। বিভিন্ন কর্মসূচি পালনের সময় দলের নেতাকর্মী ও নিহতের রাজপথের সহকর্মীরা এ দাবি করেন। এদিন নেতাকর্মীরা বেজপাড়াস্থ স্মৃতিস্তম্ভে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানোসহ তার রুহের মাগফিরাত কামনা করেন। তার স্মরণে স্মরণসভা করে শহর স্বেচ্ছাসেবক লীগ। শুক্রবার বিকাল অনুষ্ঠিত স্মরণ সভায় সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের আহবায়ক এসএম মাহামুদুল হাসান সুমন। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যশোর জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আসাদুজ্জামান মিঠু। শহর স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম আহবায়ক শাহাজাদা নেওয়াজের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ নূরে আলম সিদ্দিকী মিলন, দপ্তর সম্পাদক এস.এম জাহাঙ্গীর হোসেন খোকন, শহর স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম আহবায়ক নজরুল ইসলাম সোহাগ, ইব্রাহিম, শেখ নজরুল ইসলাম, ওবায়দুল্লাহ প্রমুখ। এর আগে দুপুর ১২টার দিকে মরহুমের বেজপাড়াস্থ স্মৃতি স্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করা হয়। আর রাত ১২ টা এক মিনিটে মোমবাতি প্রজ্জলন করে এলাকার শান্তিশৃঙ্খলা কমিটি। এছাড়া তার রুহের মাগফেরাত কামনা করে পরিবারের পক্ষ থেকে মসজিদে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।
পুলিশ জানায়, গত ২০১৪ সালের ৯ আগস্ট বিকেলে নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে দুর্বৃত্তদের গুলিতে খুন হন শহর স্বেচ্ছাসেবকলীগ ও এলাকার শান্তি শৃঙ্খলা কমিটির সভাপতি আব্দুল মান্নান। এঘটনার পর নিহতের ভাই মোর্শেদ আলীর দায়ের করা মামলায় ৭জনকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট দিয়েছে পুলিশ। কিন্তু এখনো সকল আসামি গ্রেপ্তার হয়নি। ফলে তার খুনিদের গ্রেপ্তার ও বিচারের জরালো দাবি করা হয়েছে। গতকাল দিনব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচিতে দাবি জানানোর পাশাপাশি ক্ষোভ প্রকাশ করতে দেখা যায় এলাকাবাসী ও দলের নেতাকর্মীদের।
বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২টা ১ মিনিটে আব্দুল মান্নানের স্মৃতিস্তম্ভে ফুল দিয়ে ও মোমবাতি প্রজ্জ¦লন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক নুরে আলম মিলন, শহর স্বেচ্ছাসেবকলীগের আহবায়ক মাহামুদুল হাসান সুমন, চিরুণী কল টিবি ক্লিনিক কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের সভাপতি সরোয়ার তরফদার, সেক্রেটারি জুয়েল হায়দার, মোহাম্মদ আলী শেখ, ৭ নম্বর ওয়ার্ড যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক রকিবুল ইসলাম ছিটন, নজরুল ইসলাম সোহাগ প্রমুখ।
এদিন সকাল সাড়ে ১০টার দিকে প্রেসক্লাব যশোরের সামনে মানববন্ধন করে করেছে এলাকাবাসী। মান্নানের খুনি পেচো এখনো গ্রেপ্তার হয়নি। এতে বিচারক কাজ বিলম্বিত হচ্ছে। অতি দ্রুত পেচোকে গ্রেপ্তার করে বিচারক তরান্বিত করার জন্য প্রশাসনের প্রতি আহবান জানিয়েছে স্থানীয়রা।
এদিকে মান্নানের অন্য খুনিরা জামিনে মুক্ত হয়ে প্রকাশ্যে মামলা প্রত্যাহারের জন্য বাদী ও নিহতের পরিবারের সদস্যদের হুমকি দিচ্ছে বলে ভুক্তভোগীরা জানিয়েছেন।
নিহতের স্ত্রী সাহিদা খাতুন দিপ্তি বলেছেন খুনিদের দ্রুত গ্রেপ্তার করে ফাঁসি কার্যকরের দাবি জানাই।

SHARE