নড়াইলে বন্দুকযুদ্ধে শীর্ষ সন্ত্রাসী নিহত

নড়াইল প্রতিনিধি॥ নড়াইলের ধোপাখোলা-কাড়াল বিল এলাকায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুক যুদ্ধে রুম্মান হোসেন রোমিও (২৮) নামে এক শীর্ষ সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে। বুধবার ভোররাত ৩টার দিকে এই বন্দুক যুদ্ধের ঘটনা ঘটে। নিহত রোমিও নড়াইল সদর উপজেলার মধুরগাতি গ্রামের মিজানুর রহমানের ছেলে। এ সময় তিন পুলিশ সদস্য আহত হন।
পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে অভিযানে যায়। সেখানে দেখা যায় একদল সন্ত্রাসী সদর উপজেলার ধোপাখোলা-কাড়ারবিল এলাকায় অবস্থান করছে। পুলিশ সন্ত্রাসীদের আটকের চেষ্টা করলে তারা পুলিশের ওপর হামলা করে। এ সময় পুলিশও আত্মরক্ষায় পাল্টা আক্রমণ চালায়। বন্দুকযুদ্ধের এক পর্যায়ে পুলিশ গুলিবিদ্ধ রোমিওকে উদ্ধার করে নড়াইল সদর হাসপাতালে আনলে কর্তব্যরত চিকিসৎক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পুলিশি অভিযানের এক পর্যায়ে রোমিও’র সহযোগিরা পালিয়ে যায়। নিহত রোমিও এলাকায় দীর্ঘদিন যাবত খুন, ডাকাতিসহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের সঙ্গে জড়িত ছিল।
এ সময় পুলিশ সদস্য সোহাগ, মফিজুল ও নাজমুল আহত হন। আহত পুলিশ সদস্যদের সদর হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।
নড়াইল সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইলিয়াস হোসেন জানান, নিহত রোমিওর নামে নড়াইল, যশোর ও অভয়নগর থানায় খুন, ডাকাতি, বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকান্ডসহ ১৩টি মামলা রয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ১টি পিস্তল, দু’রাউন্ড গুলি ও ১টি ম্যাগজিন উদ্ধার করেছে। এ ব্যাপারে নড়াইল সদর থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।

শেয়ার