ট্রাম্পের দাবি না মিটিয়েই সরকার সচলের পথে ডেমোক্র্যাটরা

সমাজের কথা ডেস্ক॥ মেক্সিকো সীমান্তে দেয়াল নির্মাণে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ৫শ’ কোটি ডলার তহবিলের দাবি না মিটিয়েই সরকারে চলমান অচলাবস্থা নিরসনের পরিকল্পনা করেছে ডেমোক্র্যাটরা।

দেয়ালের জন্য ডেমোক্র্যাটরা ওই তহবিল বরাদ্দ অনুমোদন না করলে ট্রাম্প সরকার অচলের হুমকি দেওয়ার পর গত ১০ দিন ধরে যুক্তরাষ্ট্র সরকারে আংশিক অচলাবস্থা চলছে।

এ পরিস্থিতির অবসান ঘটাতেই এবার ডেমোক্র্যাটিক এমপি’রা বৃহস্পতিবার একটি ‘ফান্ডিং প্যাকেজ’ এ ভোট দেওয়ার পরিকল্পনা করেছে। কিন্তু এ প্যাকেজে যুক্তরাষ্ট্র-মেক্সিকো সীমান্ত প্রাচীরের জন্য ট্রাম্পের দাবি করা পাঁচশ কোটি মার্কিন ডলার দিচ্ছে না তারা।

২০১৭ সালের জানুয়ারিতে ক্ষমতায় আসার পর এবারই প্রথম ট্রাম্পকে পরীক্ষায় ফেলতে যাচ্ছেন ডেমক্র্যাটিক এমপি’রা।

ট্রাম্প যখন ক্ষমতায় আসেন তখন যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসের উভয়কক্ষেই তার দল রিপাবলিকানদের নিয়ন্ত্রণে ছিল।

কিন্তু গত নভেম্বরের মধ্যবর্তী নির্বাচনে নিম্নকক্ষ হাউজ অব রিপ্রেজেন্টেটিভসের নিয়ন্ত্রণ পায় ডেমোক্র্যাটরা।

সোমবার হাউজ অব রিপ্রেজেন্টেটিভস-এ ডেমোক্র্যাট পরিকল্পিত দুই স্তরের ওই ‘ফান্ডিং প্যাকেজ’তৈরি করা হয়। এ প্যাকেজে ডিপার্টমেন্ট অব হোমল্যান্ড সিকিউরিটি এবং সীমান্ত নিরাপত্তা তহবিল বর্তমানে যেভাবে দেওয়া হচ্ছে সেভাবেই আগামী ৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত দিয়ে যাওয়ার প্রস্তাব সংক্রান্ত একটি বিল রয়েছে। একইসঙ্গে বন্ধ হয়ে যাওয়া বিভিন্ন সরকারি সংস্থায় তহবিলের ব্যবস্থা করার কথাও বলা হয়েছে এতে।

হাউজ অব রিপ্রেজেন্টেটিভস-এ দুই স্তরের ওই ‘ফান্ডিং প্যাকেজ’নিয়ে বৃহস্পতিবার আলাদাভাবে ভোট হবে বলে জানিয়েছেন ডেমোক্র্যাটিক নেতারা। ৩৬ আসনের সংখ্যাগরিষ্ঠতায় এ কক্ষ তাদের নিয়ন্ত্রণে।

হাউজে ভোটে পাস করলে ওই ‘ফান্ডিং প্যাকেজ’ রিপাবলিকান নিয়ন্ত্রিত উচ্চকক্ষ সিনেটে যাবে।

যদিও সিনেটে ওই বিল অনুমোদন পাওয়ার নিয়ে যথেষ্ট সন্দেহ আছে। ট্রাম্পের খ্যাপাটে কা-কারখানাও সরকারে অচলাবস্থা অবসানের পথে বড় বাধা।

শেয়ার