যশোরে নববধূকে যৌতুক দাবিতে মারপিট, স্বামী-শ্বশুরের নামে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ বিয়ের তিন মাসের মাথায় দুই লাখ টাকা যৌতুক দাবিতে যশোরে কলেজছাত্রী নববধূকে মারপিট করেছে স্বামী-শ্বশুরসহ অনেকে। এঘটনায় ওই ছাত্রীর পিতা বাদী হয়ে তার স্বামী-শ্বশুরসহ অজ্ঞাতনামা ১০/১২জনকে আসামি দিয়ে মামলা করেছে। বুধবার রাতে শহরতলীর ঝুমঝুমপুর বালিয়াডাঙ্গা গ্রামের পশ্চিমপাড়ার সাহাদৎ মোল্যা বাদী হয়ে কোতোয়ালি মডেল থানায় এ মামলা করেন। আসামিরা হলো, শহরের সিটি কলেজপাড়ার মোতালেব ও তার ছেলে আল আমিন।
বাদী মামলায় উল্লেখ করেছেন, তার মেয়ে সোমাইয়া খাতুন মালাকে (১৭) তিন মাস আগে জোর করে বিয়ে করে আসামি আল আমিন। সে কারণে পিতার পরিবারের সাথে মালার সম্পর্ক তেমন একটা ভাল নয়। মাঝে মধ্যে আল আমিনসহ তার পরিবারের লোকেরা যৌতুকের জন্য মালার উপর শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন চালায়। গত ৯ ডিসেম্বর বিকেল ৪টার দিকে মালার কাছে দুই লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে স্বামী আল আমিন। কিন্তু পিতার বাড়ি থেকে যৌতুকের টাকা এনে দেয়া সম্ভব নয় বলে জানিয়ে দেয় মালা। এসময় তার পিতা মোতালেবসহ ১০/১২ জনে মালাকে এলোপাতাড়ি মারপিট কলে গলা টিপে শ্বাসরোধে হত্যার চেষ্টা চালায়। মালার চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এলে তাকে বাড়ি থেকে বের দেয় আল আমিন ও তার পরিবার। পরে খবর পেয়ে মালার পিতাসহ পরিবারের লোকজন এসে বুধবার ১৩ ডিসেম্বর রাতে থানায় এ মামলা করা হয়। এ মামলা করা হলেও আসামিরা কেউ আটক হয়নি।

শেয়ার