জিমিদের নিয়ে দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনা জার্মান কোচের

সমাজের কথা ডেস্ক॥ এএইচএফ কাপের শিরোপা জেতার পর বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের সঙ্গে চুক্তিটা এখনও হয়নি অলিভার কুর্টজের। কিন্তু জিমি-আশরাফুলদের নিয়ে দীর্ঘমেয়াদে পরিকল্পনা করছেন জার্মান এই কোচ। ওয়ার্ল্ড হকি লিগের দ্বিতীয় রাউন্ড সামনে রেখে কাজও চালিয়ে যাচ্ছেন!

ঘরোয়া হকির নিয়ন্ত্রক সংস্থাটির সাধারণ সম্পাদক আবদুস সাদেক বৃহস্পতিবার সংবাদ সম্মেলনে জানালেন, শিগগিরই কুর্টজের সঙ্গে চুক্তিটা হবে।

“চুক্তিটা হবে টোটাল প্যাকেজ। শুধু ২০১৭ সাল নয়, সে তিন বছরের পরিকল্পনা করেছে। পরিকল্পনার বিভিন্ন বিষয় সে চুক্তিতে উল্লেখ রাখতে চাইছে। তো আমরাও বিষয়গুলো দেখছি। সে ২০ ডিসেম্বর বড়দিনের ছুটিতে বাড়ি যাবে, আমরা আশা করছি, তার আগেই চুক্তিটা সেরে ফেলার।”

ওয়ার্ল্ড হকি লিগের দ্বিতীয় রাউন্ডে সেমি-ফাইনালে খেলার লক্ষের কথা আগেই জানিয়েছিলেন কুর্টজ। এবারের সংবাদ সম্মেলনে মেলে ধরলেন দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনা। সেখানে আগামী মার্চে নিজেদের টার্ফে ওয়ার্ল্ড হকি লিগ শুরুর আগে দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রস্তুতি ম্যাচ খেলতে যাওয়া, নিজেদের মাঠে ইউরোপের কোনো দল এনে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলার মতো বিষয়গুলো আছে।

এছাড়া জানুয়ারিতে বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বিকেএসপিতে অনুশীলনের সময় জিমিদের জন্য অ্যাথলেটিক্স কোচ, দেশের বাইরের অনুশীলনের সময় দলের প্রয়োজন অনুযায়ী সহকারী কোচও চেয়েছেন তিনি।

বড়দিনের ছুটি কাটিয়ে বাংলাদেশে ফিরে জিমিদের নিয়ে পুরো দমে কাজ শুরু করতে আশাবাদী কুর্টজ।

“বিকেএসপির ক্যাম্পের পর দক্ষিণ আফ্রিকাতে তিনটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলতে যাওয়ার পরিকল্পনা আছে আমার। ওয়ার্ল্ড হকি লিগের দ্বিতীয় রাউন্ডের সেমি-ফাইনালে ওঠার জন্য সেরা দলটাই আমরা সাজাব।”

“গতকাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আমার দীর্ঘক্ষণ আলোচনা হয়েছে। আমি চেয়েছি, যে প্রোগাম নিয়েছি, সেগুলো চুক্তিপত্রে থাকবে। আশা করি, সোমবারের মধ্যে চুক্তিটা হয়ে যাবে।”

শেয়ার