থাপ্পড়ের হুমকি দিয়ে মন্ত্রীর পদত্যাগ

montri
সমাজের কথা ডেস্ক॥ দুই সাংবাদিককে ‘থাপ্পড়’ মারার হুমকি দেওয়ার পর সমালোচনার মুখে পদত্যাগ করেছেন পর্তুগালের সংস্কৃতিমন্ত্রী জোয়াও সোয়ারেস। বিবিসি বলছে, বৃহস্পতিবার এক ফেইসবুক পোস্টে সোয়ারেস বলেন, দুই কলাম লেখককে ‘তাদের মঙ্গলের জন্য থাপ্পড় মারতে’ খুঁজছেন তিনি।
মন্ত্রীর এই ফেইসবুক পোস্টকে আক্রমণ করে জনসাধারণ, বিরোধী রাজনীতিবিদ ও সাংবাদিকদের কাছ থেকে শত শত সমালোচনামূলক প্রতিক্রিয়া আসে।
‘ব্যক্তিগত আক্রমণে অপমানিত’ হওয়ার প্রতিক্রিয়ায় এ মন্তব্য করেছেন বলে প্রথমে আত্মপক্ষ সমর্থন করার চেষ্টা করেছিলেন সোয়ারেস। কিন্তু তীব্র প্রতিক্রিয়ার পরিপ্রেক্ষিতে পরবর্তী সময়ে ক্ষমা চান তিনি।
কিন্তু বিষয়টি নিয়ে পর্তুগিজ প্রধানমন্ত্রী আন্তোনিও কোস্তা তাকে তিরস্কার করার পর ৬৬ বছর বয়সী সংস্কৃতিমন্ত্রী পদত্যাগ করেন এবং প্রকাশ্য বিবৃতিতে সবার কাছে ক্ষমা চান।
পদত্যাগের পর এক বিবৃতিতে তিনি বলেছেন, তিনি তার মতামত প্রকাশ করার অধিকার বিসর্জন দেবেন না।
তিনি আরো বলেন, নভেম্বরে পর্তুগালের ক্ষমতা গ্রহণ করা মধ্য-বামপন্থি সমাজতান্ত্রিক সরকারকে তিনি কোনো সমস্যায় ফেলতে চান না।পরিশেষে নিজেকে ‘শান্তিপ্রিয়’ মানুষ হিসেবে দাবি করেন তিনি। পর্তুগালের রাজধানী লিসবনের সাবেক মেয়র সোয়ারেস দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও প্রেসিডেন্টের ছেলে।
যে কলাম দুটিকে কেন্দ্র করে পর্তুগিজ ভাষায় সোয়ারেস ওই বিতর্কিত মন্তব্যটি করেন, পাবলিকো সংবাদপত্রে প্রকাশিত তার একটিতে সোয়ারেসের বিরুদ্ধে অযোগ্যতা, রূঢ়তা ও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ তোলা হয়েছিল।

শেয়ার