সঞ্চয়পত্র: নমিনি ট্রাস্টি, অর্থ উত্তরাধিকারীর

shoncoypotro
সমাজের কথা ডেস্ক॥ নমিনি যিনিই হন, সঞ্চয়পত্রের মালিক মারা গেলে তিনি সেই অর্থের মালিক হবেন না; প্রয়াতের সেই অর্থের মালিক হবেন তার উত্তরাধিকাররা।
মৃত এক ব্যক্তির সঞ্চয়পত্রের মালিকানা নিয়ে তার দ্বিতীয় স্ত্রীর সঙ্গে প্রথম স্ত্রীর সন্তানদের মালিকানার দ্বন্দ্ব নিষ্পত্তি করে রোববার এই রায় দিয়েছে হাই কোর্ট।
শহীদুল হক খান চৌধুরী নামে এক ব্যক্তির মৃত্যুর পর তার ৩০ লাখ টাকার সঞ্চয়পত্রের মালিকানা নিয়ে বিরোধ দেখা দিলে বিষয়টি আদালতে গড়ায়।
শহীদুল তার সঞ্চয়পত্রের নমিনি করেছিলেন দ্বিতীয় স্ত্রীকে। তার মৃত্যুর পর প্রথম স্ত্রীর ছেলে মনজুরুল হক চৌধুরী সঞ্চয়পত্রের টাকার অংশীদার হতে নিম্ন আদালতে সাকসেশন সার্টিফিকেট মামলা করেন।
নিম্ন আদালত নমিনি হিসেবে দ্বিতীয় স্ত্রীর প্রাপ্যতার অধিকারের স্বীকৃতি দিয়ে সাকসেশন মামলাটি খারিজ করে দিলে মনজুরুল ও তার দুই বোন আপিল করেন।
২০১৫ সালের জুনে আপিলও খারিজ হয়ে গেলে প্রয়াত শহীদুলের প্রথম স্ত্রীর ছেলে ও দুই মেয়ে হাই কোর্টে সিভিল রিভিশন আবেদন করেন। এ আবেদনের শুনানি নিয়ে গত বছরের ১৫ জুন হাই কোর্ট রুল দেয়।
এই রুলের ওপর চূড়ান্ত শুনানি শেষে রোববার আদালত রুল যথাযথ (অ্যাবসলিউট) ঘোষণা করে রায় দেয় বিচারপতি নাইমা হায়দার ও বিচারপতি খিজির আহমেদ চৌধুরীর বেঞ্চ।
আদালতে রিভিশন আবেদনকারীর পক্ষে শুনানি করেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এম আই ফারুকী, সঙ্গে ছিলেন সাদেকুর রহমান ও নাজনীন নাহার। অন্যপক্ষে (মৃত ব্যক্তির দ্বিতীয় স্ত্রী) ছিলেন আইনজীবী বি এম ইলিয়াস কচি ও মাকসুদুল ইসলাম।

শেয়ার