ইসিকে সহযোগিতা দিতে মন্ত্রিপরিষদের নির্দেশ

EC
সমাজের কথা ডেস্ক॥ ২ হাজার ২৭৫ ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে নির্বাচন কমিশনকে (ইসি) সার্বিক সহায়তা দিতে সরকারি সব দফতর, স্বায়ত্বশাসিত সংস্থা এবং বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের নির্দেশ দিয়েছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।
নির্বাচনী সময়সূচি অনুযায়ী, প্রথম পর্যায়ে আগামী ২২ মার্চ ৭৩৮টি এবং দ্বিতীয় পর্যায়ে ৩১ মার্চ ৭৭২টি ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ভোট গ্রহণ করবে ইসি।
মন্ত্রিপরিষদের নির্দেশনায় বলা হয়েছে, মার্চ-জুন ২০১৬ মেয়াদে নির্বাচন কমিশন ঘোষিত ছয়টি পর্যায়ে ৪ হাজার ২৭৫টি ইউনিয়ন পরিষদের সাধারণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচন যাতে অবাধ, সুষ্ঠু, শান্তিপূর্ণ ও নিরপেক্ষভাবে অনুষ্ঠিত হয়, সেদিকে সংশ্লিষ্ট সকলের লক্ষ্য রাখা কর্তব্য।
নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে অনুষ্ঠানের জন্য নির্বাচন কমিশন ইতোমধ্যে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিয়েছে। সরকারের পক্ষ থেকে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় প্রয়োজনীয় কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে।
মন্ত্রিপরিষদের গত ৮ মার্চের নির্দেশনায় আরো বলা হয়, নির্বাচন সংক্রান্ত কার্যাদি সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার জন্য সরকারি সব দফতর, স্বায়ত্বশাসিত সংস্থা এবং বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মধ্য থেকে প্রয়োজনীয় সংখ্যক প্রিজাইডিং অফিসার, সহকারী প্রিজাইডিং অফিসার, এবং পোলিং এজেন্ট নিয়োগ করা হবে।
বিভিন্ন পর্যায়ে সরকারি এবং সরকারি অনুদান পাওয়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক ও শিক্ষিকাকে নির্বাচনের কাজে প্রত্যক্ষভাবে দায়িত্ব পালন করতে হবে। আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় প্রয়োজনীয় সংখ্যক ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ এবং আইন-শৃঙ্খলারক্ষাকারী সংস্থার সদস্যদের মোতায়েন করা হবে।
এ অবস্থায় নির্বাচন অনুষ্ঠানের কাজে অর্পিত দায়িত্ব আইন ও বিধি মেনে নিরপেক্ষভাবে পালনের মাধ্যমে নির্বাচন কমিশনকে সহায়তা করার জন্য সরকারের সব মন্ত্রণালয় ও বিভাগকে তাদের আওতাধীন কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেওয়ার অনুরোধ জানানো হলো।

শেয়ার