পুলিশ পরিচয়ে ঝিনাইদহের মাদ্রাসা শিক্ষককে তুলে নেওয়ার পর যশোরে মৃতদেহ উদ্ধার

master
নিজস্ব প্রতিবেদক॥ ঝিনাইদহের মাদ্রাসা শিক্ষক আবু হুরাইরাকে (৫৫) পুলিশ পরিচয়ে ৩৫ দিন আগে তুলে নেওয়ার পর সোমবার যশোর থেকে মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার সকালে অজ্ঞাত হিসেবে লাশ উদ্ধারের পর এদিন রাত ৮ টার দিকে হাসপাতালে এসে পরিচয় সানাক্ত করেন স্বজনরা। এর আগে তার লাশ যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে রাখা ছিলো। তার শরীরের বিভিন্নস্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।
নিহত আবু হুরাইরা ঝিনাইদহ সদর উপজেলার অশ্বথলী গ্রামের মৃত আসির উদ্দিনের ছেলে। তিনি ঝিনাইদহের কুঠি দুর্গাপুর মাদ্রাসার শিক্ষক। এছাড়া ঝিনাইদহ জামায়াত ইসলামীর সূরা সদস্য বলে নিশ্চিত করেছেন সেখানকার সদর থানার ভারপ্রাপ্ত ওসি হাসান হাফিজুর রহমান। তিনি আরও জানান, তার নামে মামলা নেই।
নিহতের ভাই আব্দুল মালেক জানান, ডিবি পুলিশ পরিচয়ে ২০১৬ সালের ২৪ জানুয়ারি আবু হুরাইরাকে তার কর্মস্থল ঝিনাইদহের কুঠি দুর্গাপুর মাদ্রাসা থেকে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়। এরপর থেকে তিনি নিখোঁজ ছিলেন। এঘটনায় থানায় ডিজি করা হয়। কিন্তু কোথায় খুঁজে পাওয়া যায়নি। এমনকি পুলিশ আটকের কথাও স্বীকার করেনি।
যশোর কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইলিয়াস আলী জানান, পুলিশ যশোর-চৌগাছা সড়কের আমবটতলা এলাকার বেলতলা নামক স্থানে মৃতদেহটি উদ্ধার করে। স্থানীয়দের খবরের প্রেক্ষিতে মৃতদেহটি উদ্ধার করে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়। পরে রাতে তার স্বজনরা মৃতদেহটি দেখে পরিচয় সনাক্ত করেন।

শেয়ার