৪ শিশু হত্যার বিচার বিশেষ ট্রাইব্যুনালে: প্রতিমন্ত্রী

mont
সমাজের কথা ডেস্ক॥ হবিগঞ্জের সুন্দ্রাটেকিতে চার শিশুকে হত্যার সঙ্গে জড়িতদের বিশেষ ট্রাইব্যুনালে বিচার করা হবে বলে জানিয়েছেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি। শুক্রবার দুপুরে বাহুবল উপজেলার সুন্দ্রাটেকি গ্রামে নিহত শিশুদের বাড়ি গিয়ে স্বজনদের সঙ্গে কথা বলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে প্রত্যেক পরিবারকে ৫০ হাজার টাকা করে অনুদান দিয়ে তাদের সব ধরনের আইনি সহযোগিতারও আশ্বাস দেন প্রতিমন্ত্রী।

তিনি বলেন, “এ ধরনের নির্মম ঘটনা মেনে নেওয়া যায় না। জড়িতদের কাউকে কোনো রকম ছাড় দেওয়া হবে না। এর বিচার বিশেষ ট্রাইব্যুনালের মাধ্যমে দ্রুত শেষ করা হবে।”

গত শুক্রবার বাড়ির পাশের মাঠে খেলতে গিয়ে স্কুল পড়ুয়া চার শিশু নিখোঁজ হওয়ার পর বুধবার সকালে সুন্দ্রাটেকি গ্রামের ঈসা বিল এলাকায় তাদের বালিচাপা লাশ পাওয়া যায়।

নিহত শিশুরা হলো স্থানীয় আবদাল মিয়া তালুকদারের ছেলে মনির মিয়া (৭), ওয়াহিদ মিয়ার ছেলে জাকারিয়া আহমেদ শুভ (৮), আব্দুল আজিজের ছেলে তাজেল মিয়া (১০) এবং আব্দুল কাদিরের ছেলে ইসমাইল হোসেন (১০)।
মনির সুন্দ্রাটেকি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রথম শ্রেণিতে এবং তার দুই চাচাত ভাই শুভ ও তাজেল একই স্কুলে দ্বিতীয় ও চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ত। আর তাদের প্রতিবেশী ইসমাইল ছিল সুন্দ্রাটেকি মাদ্রাসার ছাত্র।

এলাকায় গাছ কাটা নিয়ে বিরোধ থেকে চার শিশুকে হত্যা করা হয়েছে বলে নিহতের স্বজনদের ধারণা।

হত্যাকাণ্ডে জড়িত সন্দেহে গ্রেপ্তার ওই দুইজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০ দিনের রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ। হত্যাকারীদের ধরিয়ে দিতে এক লাখ টাকা পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছে সিলেট পুলিশের পক্ষ থেকে।

এ ঘটনায় কোনো পুলিশ সদস্যের অবহেলার প্রমাণ পাওয়া গেলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও প্রতিমন্ত্রী জানান।

শেয়ার