বেনাপোল সীমান্ত দিয়ে ভারতে পাখি পাচার॥ পাঁচজনকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট

mamla
নিজস্ব প্রতিবেদক॥ বেনাপোল এলাকার সীমান্ত দিয়ে ভারতে পাখি পাচার মামলায় পাঁচজনকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট দিয়েছে পুলিশ। একই সাথে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় মাগুরার কাটাখালি গ্রামের রফিকুল ইসলাম নামে এক আসামির অব্যাহতি চাওয়া হয়েছে। যশোর কোতোয়ালি মডেল থানার এসআই জামাল উদ্দিন আদালতে এ চার্জশিট দাখিল করেন।
অভিযুক্তরা হলেন, ঢাকার কাটাবন মার্কেটের লাবিব এন্টারপ্রাইজের সত্ত্বাধিকারী হাজী আজাহার আলী পাঠানের দুই ছেলে সোহেল পাঠান ও সুজন পাঠান, মাগুরা জেলা শহরের পারনান্দুলী গ্রামের মুন্সিপাড়ার আব্দুস সবুর শেখের ছেলে ড্রাইভার সোলেহ শেখ, নতুন বাজার এলাকার দিনবন্ধু বিশ্বাসের ছেলে পরিবহন শ্রমিক লিটন কুমার বিশ্বাস ও যশোরের শার্শা উপজেলার সামটা গ্রামের মৃত নওশের আলীর ছেলে ইদ্্িরস আলী।
মামলা সূত্র মতে, পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ২০১৫ সালের ২৩ জুন বিকেলে যশোর-বেনাপোল মহাসড়কের পুলেরহাট বাজার থেকে একটি এ্যাম্বুলেন্স গাড়ি আটক করে। এ মসয় ওই এ্যাম্বুলেন্স থেকে তিনজনকে আটকের পর তল্লাশি করে দুইটি খাঁচা থেকে বিভিন্ন প্রজাতির ২২টি পাখি উদ্ধার করা হয়।
এঘটনায় যশোর সদর পুলিশ ফাঁড়ির এটিএসআই মিজানুর রহমান বাদী হয়ে বন্যপ্রাণী সংরক্ষন আইনে কোতোয়ালি মডেল থানায় মামলা করেন। তদন্ত শেষে আটক আসামিদের দেয়া তথ্য এবং স্বাক্ষীদের বক্তব্যে ওই ওই পাঁচজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় এচার্জশিট দাখিল করা হয়েছে। একই অপর একজনকে অব্যাহতি চাওয়া হয়েছে।

শেয়ার