বিদ্যুৎ বিভ্রাটে অচল তুরস্ক, নেপথ্যে সাইবার আক্রমণ!

turkey

সমাজের কথা ডেস্ক॥
মারাত্মক বিদ্যুৎ বিভ্রাটে রাজধানী আঙ্কারাসহ স্থবির হয়ে পড়েছে তুরস্কের চুয়ালি¬শটি প্রদেশ। সরকারিভাবে সরবরাহ লাইনে ত্রুটির কথা জানানো হলেও একসাথে ৪৪টি প্রদেশে একই সঙ্গে বিদ্যুৎ বিভ্রাটের কারণ হিসেবে সাইবার আক্রমণকেই দায়ী করা হচ্ছে।

মঙ্গলবার (৩১ মার্চ) স্থানীয় সময় ১০টা ৩৬ মিনিটে (বাংলাদেশ সময় দুপুর ১টা ৩৬ মিনিটে) দেশটির ৮১টি প্রদেশের মধ্যে ৪৪টি প্রদেশ একযোগে বিদ্যুৎবিহীন হয়ে পড়ে।

বিদ্যুৎ সরবরাহ প্রতিষ্ঠান টার্কিশ ইলেক্ট্রিক্যাল কনডাকশন কোম্পানির (টিইআইএএস) বরাত দিয়ে রাষ্ট্র পরিচালিত সংবাদ সংস্থা আনাদলু ও বেসরকারি সংবাদমাধ্যম হুরিয়াত নিউজ জানিয়েছে, সংযোগ লাইনে ত্রুটির কারণে এই বিদ্যুৎ বিভ্রাট দেখা দিয়েছে।

দেশটির জ্বালানি মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতেও যান্ত্রিক ত্রুটির বিষয়টি উলে¬খ করা হয়। সেই সঙ্গে এজিয়ান অঞ্চলে এই ত্রুটি দেখা দিয়ে থাকতে পারে বলে বিবৃতিতে জানানো হয়।

দেশটির প্রধানমন্ত্রী আহমেট দেভাতোগলু বলেছেন, সন্ত্রাসী হামলাসহ বিদ্যুৎ বিভ্রাটের কারণ খুঁজে বের করতে সংশি¬ষ্ট কর্তৃপক্ষ কাজ করছে।

সাইবার হামলার সন্দেহটি অমূলক নয় জানিয়ে জ্বালানি মন্ত্রী তানের ইলদিজও বলেন, বিভ্রাটের কারণ খুঁজতে তার মন্ত্রণালয় কাজ করছে।

এদিকে, এই বিভ্রাটের কারণে অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক বিমান পরিবহন রুট সহ তুরস্কের যাবতীয় গণপরিবহন ব্যবস্থাতে গোলযোগ দেখা দিয়েছে।

বিদ্যুৎবিভ্রাটের কারণে ইস্তাম্বুল মিউনিসিপ্যালিটিতে মেট্রো ও ট্রাম যোগাযোগ ব্যবস্থা বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে বলে জানা গেছে।

এদিকে, দেশটির পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশ কোসাইলিতে বড় ধরণের একটি বিস্ফোরণ ঘটেছে বলে জানিয়েছে হুরিয়াত। তবে এ বিষয়ে আঙ্কারার কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে পত্রিকাটি।

গত ১৫ বছরের মধ্যে মঙ্গলবারের বিদ্যুৎ বিভ্রাটই তুরস্কের সবচেয়ে বড় বিদ্যুৎ বিপর্যয়।

শেয়ার