মাগুরায় ট্রাকে পেট্রোল বোমায় দগ্ধ ৯

Magura
সমাজের কথা ডেস্ক॥ বিএনপি-জামায়াত জোটের হরতাল-অবরোধের মধ্যে মাগুরায় ট্রাকে পেট্রোল বোমা হামলায় ৯ জন শ্রমিক দগ্ধ হয়েছেন। শনিবার রাতে সদর উপজেলার মঘীর ঢাল এলাকার এ ঘটনা ঘটে। দগ্ধদের আশঙ্কাজনক অবস্থায় মাগুরা সদর হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসকরা ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন।
পেট্রোল বোমায় মারাত্মক আহত ইয়ারুল (২৫), ফারুক (৩৫), নাজমুল (৩৫), মইনুল (৪০), ইলিয়াস (৪০), মুক্ত (২২), অরুণ গাইন (৬০), মাহমুদ (১৫) ও হাসান (২৩) সবাই শ্রমিক। তাদের বাড়ি সদর উপজেলার মালিক গ্রামে।
মাগুরা সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক দেবাশীষ বিশ্বাস বলেন, মাগুরা সদর হাসপাতালে বার্ন ইউনিট না থাকায় দগ্ধদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ঢাকা মেডিকেলের বার্ন ইউনিটে পাঠানো হয়েছে। আহতদের ৬২ থেকে ৮২ শতাংশ পুড়ে গেছে। তারা কেউ আশঙ্কামুক্ত নন।
পুলিশ জানায়, রাত ৮টার দিকে জেলা সদরের মাঘিরঢাল এলাকায় মাগুরা-যশোর মহাসড়কে বালুর ট্রাকে পেট্রোলবোমা ছুড়ে মারে দুর্বৃত্তরা। এসময় ওই ট্রাকে থাকা ৯ জন শ্রমিক দগ্ধ হয়। খবর পাওয়ার পরে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রণ করে। পুলিশ সদস্যরা দগ্ধ শ্রমিকদের উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
অগ্নিদগ্ধ মতিন জানান, সন্ধ্যার পর শালিখার আড়পাড়া এলাকায় বালু নামিয়ে তারা ট্রাকে করে মাগুরা ফিরছিলেন। পথিমধ্যে মঘির ঢাল এলাকায় পৌঁছালে রাস্তার পাশ থেকে দুর্বৃত্তরা পেট্রোল বোমা ছুড়ে মারে। এ সময় মুহূর্তের মধ্যে গোটা ট্রাকে আগুন ছড়িয়ে পড়লে তারা সবাই দগ্ধ হয়। পরে স্থানীয়রা উদ্ধার করে তাদের মাগুরা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসে।
দগ্ধ মতিনের বরাত দিয়ে মাগুরার সহকারী পুলিশ সুপার সুদর্শন কুমার রায় জানান, মাগুরার শালিখার আড়পাড়া এলাকায় বালু নামিয়ে শ্রমিকরা ট্রাকে করে বাড়ি ফিরছিলেন। রাত সোয়া ৮ টার দিকে মঘির ঢাল এলাকায় পৌঁছালে দুর্বৃত্তরা পেট্রোল বোমা ছুড়ে মেরে পালিয়ে যায়।
এদিকে, জামায়াত-বিএনপির ক্যাডারদের ছোড়া পেট্রোল বোমায় দগ্ধ ফেনীর দাগনভূঁইয়া উপজেলায় মুক্তিযোদ্ধা আবু ইউসুফ (৬৫) মারা গেছেন। তিনি পেশায় ট্রাকচালক ছিলেন। শনিবার রাত সাড়ে ৯টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে তারা মৃত্যু হয়। আবু ইউসুফ কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার জিয়াপুর গ্রামের বাসিন্দা। বৃহস্পতিবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ২০ দলের হরতাল চলাকালে ফেনী-নোয়াখালী সড়কে দাগনভূঞা উপজেলার মাতুভূঞা এলাকায় মাছবোঝাই পিকআপভ্যানে পেট্রোলবোমা ছুড়ে মারে দুর্বৃত্তরা। এতে চালক মুক্তিযোদ্ধা আবু ইউসুফসহ দগ্ধ হন ৫ জন। দগ্ধদের প্রথমে ফেনী আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে আশঙ্কাজনক অবস্থায় আবু ইউসুফকে ঢাকা মেডিকেল কলেজের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় শনিবার রাতে তার মৃত্যু হয়।
অপর দিকে, রাজধানীর দৈনিকবাংলা মোড়ে ককটেল বিস্ফোরণে মতিঝিল জোনের ট্রাফিক পুলিশের এএসআই নজরুল ইসলাম (৪৪) ও কনস্টেবল কামরুজ্জামান (৩৮) নামে দুই ট্রাফিক পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। শনিবার রাত ৭টা ৫৫ মিনিটে এ ঘটনা ঘটে। মতিঝিল জোনের ট্রাফিক ইন্সপেক্টর (টিআই) শাহজাহান মিয়া জানান, ট্রাফিক পুলিশ সদস্যরা রাতে ডিউটি করার সময় হঠাৎ করে পরপর কয়েকটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটে। এ সময় তারা দুইজন আহত হন। পরে তাদের মধ্যে কনস্টেবল কামরুজ্জামানকে রাজারবাগ পুলিশ লাইন হাসপাতাল ও এএসআই নজরুল ইসলামকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

শেয়ার