হরতাল-অবরোধ বন্ধের দাবি খালেদাকে চিকিৎসকদের ২৪ ঘণ্টার আলটিমেটাম

ka
সমাজের কথা ডেস্ক॥

চলমান হরতাল-অবরোধ বন্ধে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে ২৪ ঘণ্টার আলটিমেটাম দিয়েছে চিকিৎসক প্রতিনিধি দল। এই সময়ের মধ্যে কর্মসূচি প্রত্যাহার না করলে প্রতিবাদ নয়, প্রতিরোধের হুঁশিয়ারিও দেন তারা।

বুধবার (১১ মার্চ) বেলা ১টার দিকে খালেদার গুলশান কার্যালয়ে কর্মসূচি বন্ধের আহ্বানে স্মারকলিপি দেন ও পরে সাংবাদিকদের একথা বলেন চিকিৎসক নেতারা।

সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. আ ফ ম রুহুল হক, গাইবান্ধা থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য ডা. ইউনুস আলী, সাভার থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য ডা. এনামুর রহমান, সিরাজগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য ডা. হাবিবে মিল্লাতসহ ১০ জন ডাক্তার ও নার্স ছিলেন এই দলে।

আলটিমেটামের বিষয়টি সাংবাদিকদের জানান ডা. ইউনুস আলী।

কার্যালয়ের সামনে এসে তারা জানান, ২০ দলীয় জোট নেতা খালেদার কাছে হরতাল-অবরোধ ও সহিংসতা বন্ধের আহ্বান নিয়ে এসেছেন। সংসদ সদস্যদের পক্ষ থেকে তারা খালেদা জিয়াকে স্মারকলিপি দিতে কার্যালয় ফটকে যান।

কিন্তু ফটক ছিল বন্ধ, ভেতর থেকে মিডিয়া উইং সদস্য শায়রুল কবির খান ও শামসুদ্দিন দিদার প্রথমে স্মারকলিপি নিতে অস্বীকৃতি জানান।

উল্টো আগতদের তারা বলেন, ‘নাটক করবেন না। কেন নাটক করতে এসেছেন?’

জবাবে কিছুটা উত্তেজিত হয়ে হাবিবে মিল্লাত ও ইউনুস বলেন, ‘নাটক মানে? নাটক কোনটা? আপনারা মানুষ পোড়াচ্ছেন, মানুষ মারছেন! এসব বন্ধ করেন। খালেদা জিয়ার কাছে আমরা স্মারকলিপি দিতে এসেছি, কিন্তু আপনাদের এই আচরণ গ্রহণযোগ্য নয়।’

মিডিয়া উইং সদস্যরা বলেন, ‘আমরা সহিংসতা করছি না। আপনারা এই স্মারকলিপি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে দিন।’

বাকবিত-ার এক পর্যায়ে স্মারকলিপিটি গুলশান কার্যালয়ের পক্ষ থেকে গ্রহণ করা হয়।

এরপর আলটিমেটামের ঘোষণা দেন ইউনুস আলী। তিনি আরও বলেন, খালেদা জিয়ার হয়তো মানসিক ভারসাম্য নেই। সেটাই স্বাভাবিক। কারণ তিনি স্বামী-সন্তানহারা, গৃহহারা অবস্থায় রয়েছেন। তার প্রতি আহ্বান থাকবে এসব সহিংসতা বন্ধ করুন।

শেয়ার