যশোরে স্কুল ছাত্রী অপহরণের ঘটনায় ৫ জনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ

Jessore kotoali thana
নিজস্ব প্রতিবেদক॥ যশোর শহরের শংকরপুর এলাকার স্কুল ছাত্রী অপহরণের ঘটনায় থানায় অভিযোগ দেয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার অপহৃত ওই ছাত্রীর পিতা বাদী হয়ে ৫ জনের নাম উল্লেখ করে কোতোয়ালি মডেল থানায় অভিযোগ দিয়েছেন।
অভিযুক্তরা হলো, শহরের শংকরপুর চোপদারপাড়ার আলা সরদারের স্ত্রী খাদিজা বেগম, ছেলে বাদশা, জাহাঙ্গীর, জালাল সরদারের ছেলে সুজন এবং একই এলাকার আঞ্জু বেগম নামে এক গৃহবধূ।
সূত্র মতে, বৃহস্পতিবার বিকেল ৩টার দিকে মেয়েটি শ্যাম্পু কেনার জন্য বাড়ির পাশে একটি দোকানে যায়। ফিরে আসার সময় বাদশা, জাহাঙ্গীরসহ অন্যরা তাকে অপহরণ করে একটি প্রাইভেটকারে নিয়ে চলে যায়। খবর পেয়ে স্থানীয় লোকজন তাদের বাড়িতে গেলে জাহাঙ্গীর তাদের বোমা মেরে উড়িয়ে দেয়ার হুমকি দেয়। পরে কোথাও মেয়ের সন্ধান না পেয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।
থানার এসআই মাহবুব আলম সিদ্দিক জানান, শহরের শংকরপুর এলাকার ১৩ বছরের একটি মেয়ে যশোর বালিকা বিদ্যালয়ে সপ্তম শ্রেণিতে পড়ে। স্কুলে যাওয়া-আসার পথে আসামি বাদশা বিয়ের প্রস্তাবসহ বিভিন্ন ধরনের আজেবাজে কথা বলে। রাজি না হওয়ায় তাকে অপহরণ করার হুমকি প্রদান করে। বিষয়টি মেয়েটির পিতা অভিযুক্ত বাদশার বাবা আলা সরদারকে জানালে তারা আরো ক্ষিপ্ত হয়। এদিকে, অভিযুক্ত পরিবারের দাবি, আলা সরদার পৌর ৭ নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির প্রচার সম্পাদক। তার ছেলে জাহাঙ্গীর একজন চি‎িহ্নত সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ী। অস্ত্র, ডাকাতি, হত্যা, মাদক ব্যবসাসহ একাধিক মামলা রয়েছে জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে। সে কারনে মেয়ের পিতা অভিযোগে ক্ষিপ্ত হয়ে পরিবারের সকলকে হত্যাসহ নানা ধরনের হুমকি দেয়। সর্বশেষ স্কুল ছাত্রীকে অপহরণ করা হলো।

শেয়ার