ঝিনাইদহে র‌্যাব-চরমপন্থিদলের বন্দুকযুদ্ধ॥ বিপ্লবী কমিউনিস্ট পার্টির আঞ্চলিক নেতা ছোট তারেক নিহত॥ অস্ত্রগুলি ম্যাগজিন উদ্ধার

Crossfire
সাজ্জাদ আহমেদ, ঝিনাইদহ॥ ঝিনাইদহে র‌্যাবের সাথে বন্দুকযুদ্ধে বিপ্লবী কমিউনিষ্ট পার্টির আঞ্চলিক নেতা রফিউল ইসলাম ওরফে ছোট তারেক (৪৩) নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার ভোররাতে সদর উপজেলার চুটলিয়া মোড় এলাকায় এই বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থল থেকে র‌্যাব ২টি নাইন এমএম পিস্তুল, ২টি রিভলবার, ২টি শার্টগান, ১০ রাউন্ড গুলি, ৬টি পেট্রোল বোমা, ২টি ম্যাগজিন এবং পেট্রোল ও খালি বোতলসহ বোমা বানানোর সরঞ্জাম উদ্ধার করেছে। নিহতের বিরুদ্ধে ৪টি হত্যাসহ ৮টি মামলা রয়েছে বলে জানিয়েছে র‌্যাব। নিহত তারেক ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বিষয়খালী গুচ্ছ গ্রামের জলিল উদ্দিনের ছেলে। এ ঘটনায় র‌্যাবের ২ কনস্টেবল আহত হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে।
র‌্যাব-৬ ঝিনাইদহ ক্যাম্পের কমা-ার স্কোয়াড্রন নিয়াজ মোহাম্মদ ফয়সাল জানান, বিপ্লবী কমিউনিষ্ট পার্টির আঞ্চলিক নেতা রফিউল ইসলাম ছোট তারেককে সোমবার রাতে নিজ বাড়ি থেকে আটক করা হয়। তাকে নিয়ে র‌্যাব রাতেই অস্ত্র উদ্ধারের জন্য বের হয়। তারা সদর উপজেলার চুটলিয়া নামক স্থানে ভোর ৪টার দিকে পৌঁছালে তারেকের সহযোগীরা তারেককে ছিনিয়ে নেয়ার জন্য র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। সেসময় র‌্যাব ও পাল্টা গুলি চালালে বন্দুকযুদ্ধ শুরু হয়। বন্দুকযুদ্ধের এক পর্যায়ের ছোট তারেক গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায়। এসময় র‌্যাবের কনস্টেবল মিলন সাহা ও গোলাম মোস্তফা আহত হন। ছোট তারেকের লাশ উদ্ধার করে স্থানীয় সদর হাসপাতালে আনা হলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্রসস্ত্র ও গোলাবারুদ উদ্ধার করা হয়। ঝিনাইদহ থানার উপ-পরিদর্শক গোকুল চন্দ্র অধিকারী জানান, সকাল আটটার দিকে সদর উপজেলার চুটটিয়া ও তেঁতুলতলার মাঝামাঝি একটি মেহগনি বাগান থেকে তারেকের মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। মৃতদেহ উদ্ধারের পর ময়না তদন্তের জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে সদর থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে। এদিকে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বিষয়খালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুর রশিদের দাবি, নিহত তারেক মহারাজপুর ইউনয়ন যুবলীগের সহ-সভাপতি ছিলেন। আগে তিনি চরমপন্থি দলের সঙ্গে যুক্ত থাকলেও ১৯৮৯ সাল থেকে তারেক আওয়ামী লীগে যোগ দিয়ে স্বাভাবিক জীবনযাপন করছিলেন। তিনি আরো জানিয়েছেন, হতদরিদ্র তারেক স্থানীয় আশ্রয়ন প্রকল্পের ঘরে বসবাস করেছিলেন।

শেয়ার