গুলশানে নৌমন্ত্রীর মিছিলে বোমা হামলা, আহত ১১

gulshan
সমাজের কথা ডেস্ক॥ খালেদা জিয়ার গুলশান কার্যালয় ঘেরাওয়ে যাওয়ার পথে নৌমন্ত্রী শাজাহান খানের মিছিলে হাতবোমা হামলায় অন্তত ১১ জন আহত হয়েছেন।

আহতদের মধ্যে কয়েকজনের আঘাত গুরুতর বলে জানিয়েছেন মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম আজাদ, যিনি নিজেও মিছিলে ছিলেন।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে তিনি বলেন, বেলা সোয়া ১২টার দিকে মিছিলটি গুলশান দুই নম্বর মোড়ের মেট্রোপলিটন শপিংমল পার হওয়ার সময় মার্কেটের ওপর থেকে ৬-৭টি বোমা ফেলা হয়।

“নৌমন্ত্রী ছিলেন মিছিলের সামনে সারিতে। তিনি মার্কেট পার হয়ে যাওয়ার পর মিছিলের মাঝামাঝি হামলা হয়।”

আবুল কালাম আজাদ জানান, হামলার পর মিছিলের লোকজন প্রাণভয়ে ছুটোছুটি শুরু করে। আশপাশের দোকানপাট বন্ধ হয়ে যায়। রাস্তায় গাড়ি চলাচলও কিছুসময় বন্ধ থাকে।

ঘটনাস্থল মেট্রোপলিটন শপিংমলের সামনের রাস্তায় অন্তত তিন জায়গায় রক্ত পড়ে থাকতে দেখা যায়। বিস্ফোরণের পরপরই মার্কেটটি বন্ধ করে দেওয়া হয়।

বোমা হামলায় আহতদের মধ্যে বাবুল আহমেদ (৫৪), মোতালেব খালাসি (২২) ও ওবায়দুল খালাসি (২১) নামের তিনজনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়।

এদের মধ্যে বাবুলের ডান-পা ও মাথায় জখম রয়েছে বলে মেডিকেল পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মোজাম্মেল হক জানান।

কর্মসূচি শেষে আহতদের দেখতে ঢাকা মেডিকেলে যান নৌমন্ত্রী শাজাহান খান।

ইউনাইটেড হাসপাতালের জরুরি বিভাগের এক কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না শর্তে জানান, তাদের হাসপাতালে রুবেল আহমেদ ও আবু তাহের ইমন নামে দুইজন প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে গেছেন।

রুবেল মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের গেণ্ডারিয়া থানার সভাপতি এবং ইমন যুগ্ম সম্পাদক। বিস্ফোরণের সময় রুবেল পা এবং ইমন হাতে আঘাত পেয়েছেন বলে হাসপাতালের ওই কর্মকর্তা জানান।

শেয়ার