নেংগুড়াহাটে চুলার আগুনে ৬টি দোকান ভস্মিভূত অর্ধ কোটি টাকা ক্ষতি

agu
নেংগুড়াহাট প্রতিনিধি॥ রাজগঞ্জের নেংগুড়াহাটে চুলার আগুনে ৬টি দোকান পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। সংবাদ পেয়ে মণিরামপুর ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় প্রায় অর্ধ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে দোকানের মালিকরা জানান।
প্রত্যক্ষদর্শিরা জানান, মণিরামপুর উপজেলার নেংগুড়াহাটে বৃহস্পতিবার দুপর ১টা ৩০ মিনিটের সময় বাজারের হাইস্কুল মাঠ সংলগ্ন দোকানদার নাজিম উদ্দীনের বসত ঘর থেকে প্রথমে আগুনের সূত্রপাত হয়। মুহূর্তের মধ্যে পাশে থাকা তৌহিদুরের কসমেটিক ও জুতার দোকান, মহাদেবের স্বর্নের দোকান এবং স্বপনের দর্জির ও ডাক্তারী দোকানে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। স্থানীয়রা আগুন নিয়ন্ত্রণ করতে না পেরে মনিরামপুর ফায়ার সার্ভিসকে সংবাদ দেয়। ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা এসে আগুন নিয়স্ত্রণে আনেন। এরই মধ্যে একে একে ৬টি দোকান পুড়ে ছাই হয়ে যায়। পাকা দোকান ঘরের সাটার টিনের চাল ও পাকা দেওয়াল পুড়ে যায়। দোকান মালিক তৌহিদুর রহমান জানান তার দোকানে থাকা নগদ দেড় লাখ টাকা সহ প্রায় ১৬ লাখ টাকার মালামাল পুড়ে গেছে। এছাড়া স্বর্ণের দোকান, দর্জির ও ডাক্তারী দোকানসহ ৬টি দোকান পুড়ে যাওয়ায় প্রায় ৪৫ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গেছে। এদিকে বাজারের কয়েক দোকানদার এই প্রতিনিধিকে জানান নাজিমের বাসা বাড়িতে তার স্ত্রী চুলার উপরে কাঠ রাখে। ঐ কাঠে আগুন ধরে যায় এবং মুহূর্তের মধ্যে তা চতুর্দিকে ছড়িয়ে পড়ে। বাজার কমিটির সভাপতি জানান, নাজিমের স্ত্রীর অসাবধানতার কারণেই এই আগুনের সূত্রপাত ঘটেছে।

শেয়ার