ভারতে স্কুলের লকারে সোনার বার ও টাকা

taka

সমাজের কথা ডেস্ক॥ ভারতের একটি স্কুলে লকার পরিষ্কার করার সেশন চলার সময় একটি গুপ্ত লকারে সোনার বার ও টাকার বান্ডিল পাওয়া গেছে।

গুজরাটের আহমেদাবাদ শহরে এ ঘটনা ঘটেছে বলে দ্য হিন্দু’র ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে সোমবার জানিয়েছে বিবিসি।

ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর “ক্লিন ইন্ডিয়া” অভিযানে সাড়া দিয়ে স্কুলটিতে পরিচ্ছন্নতা অভিযান শুরু করা হয়েছিল।

লকার পরিষ্কার করার সময় স্কুলের কর্মীরা অব্যবহৃত কয়েকটি লকারের সন্ধান পায় যেগুলোর চাবি খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। পরে লকারের তালা ভেঙে সেগুলো খোলা হলে ভিতরে সোনা ও টাকার বান্ডিল পাওয়া যায়।

একটি লকারের ভিতরে অনেকগুলো বান্ডিলে এক কোটি রুপি’র পাওয়া যায়। অপর একটিতে দুই কেজি সোনার বার পাওয়া যায়। দুটি ব্যাগে এগুলো রাখা ছিল।

পুলিশ জানিয়েছে, খাঁটি সোনার ওই বারগুলোর দাম প্রায় ৬০ লাখ রুপি হবে।

এনডিটিভি জানিয়েছে, কে লকারটি ব্যবহার করতো স্কুলে রেকর্ড বইয়ে তার কোনো উল্লেখ নেই। কেউ এই টাকা ও সোনার মালিকানাও দাবি করেননি।

স্কুলটির প্রধান শিক্ষক জানিয়েছেন, তার দুই বছরের দায়িত্বকালে লকারগুলো কাউকে বরাদ্দ দেয়া হয়নি।

পুলিশ কর্মকর্তা কে কে দেশাই জানিয়েছেন, তারা স্কুলটির শিক্ষক ও কর্মীদের জিজ্ঞাসাবাদ করে এসব সম্পদের বিষয়ে কোনো তথ্য উদ্ধার করতে পারেননি।

স্কুলের লকারের ভিতরে কে টাকা ও সোনাভর্তি ব্যাগ দুটি রেখে গেছে তা বের করতে তদন্ত শুরু করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

শেয়ার