হরতালে গাড়িতে চড়ে খালেদার কার্যালয়ে নেতারা

fwwWile

সমাজের কথা ডেস্ক॥ নিজেদের ডাকা ২৪ ঘণ্টা হরতালের মধ্যেই গাড়িতে চড়ে গুলশানে চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে এসেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির নেতারা। এর মধ্যে কেউ আবার সাংবাদিকদের এড়িয়ে যেতে কার্যালয় থেকে বেশকিছু দূরে নিজেদের গাড়ি রেখে এসেছেন। কেউ আবার নিজের গাড়ি রেখে এসেছেন ভাড়া করা সিএনজি রিকশায় চড়ে।
বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টা থেকে রাত সোয়া ৮টার মধ্যে তারা খালেদা জিয়ার কার্যালয়ে প্রবেশ করেন। রাত সাড়ে ৮টার দিকে তারা আবার কার্যালয় থেকে বেরিয়ে আসেন।

এর মধ্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আরএ গণি, বেগম সারোয়ারী রহমান, ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া, নজরুল ইসলাম খান বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার গুলশানের রাজনৈতিক কার্যালয়ে গাড়ি নিয়েই প্রবেশ করেন। বেগম সারোয়ারী রহমানের গাড়িতে ছিলেন বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য নিলুফার ইয়াসমিন মনি।

তবে স্থায়ী কমিটির অপর সদস্য ড. আব্দুল মঈন খান এবং ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ কার্যালয়ের অদূরে গাড়ি রেখে হেঁটে আসেন। মওদুদের সঙ্গে ছিলেন তার স্ত্রী হাসনা জসিম উদ্দীন মওদুদ। ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়ার সঙ্গেও তার স্ত্রী ছিলেন।

এছাড়া বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার জমিরউদ্দিন সরকার রাত সোয়া ৮টার দিকে ভাড়া করা একটি সিএনজি অটোরিকশায় করে বেগম খালেদা জিয়ার কার্যালয়ে আসেন।

কার্যালয় থেকে বের হওয়ার পরও নিজেদের গাড়িতে চড়েই স্থান ত্যাগ করেন প্রায় সবাই। তবে মওদুদ আহমদ হেঁটে হেঁটে কিছু দূর গেলেও তার গাড়িও ছিল পেছন পেছন। আর ড. মঈন খান হেঁটেই কার্যালয় থেকে বেরিয়ে যান।

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার ঢাকাসহ ১২ জেলায় ১২ ঘণ্টার হরতাল ডাকে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট। তবে ঢাকা মহানগরে বৃহস্পতিবার ভোর ৬টা থেকে শুক্রবার ভোর ৬টা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টা হরতাল পালন করা হচ্ছে। একই সঙ্গে ২০ দলের অনির্দিষ্টকালের অবরোধ কর্মসূচি অব্যাহত রয়েছে।

বিএনপি চেয়ারপারসন, ২০ দলীয় জোট নেতা বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের ও জোটের নেতা-কর্মীদেরকে হত্যা, গ্রেপ্তার ও নির্যাতনের প্রতিবাদে এ হরতাল কর্মসূচি আহ্বান করা হয়।

শেয়ার