আজ ঘুরে দাঁড়াতে চায় টাইগাররা

m
সমাজের কথা ডেস্ক॥ ঘরের মাঠে প্রথম একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচে ডার্ক লুইস নিয়মে ভারতের কাছে হেরেছে স্বাগতিকরা। বৃষ্টির কারণে সাত উইকেটে হারলেও নিজেদেরই দায়ী করছেন অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। মঙ্গলবার একই ভেন্যুতে সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে দুপুর একটায় মুখোমুখি হবে মুশফিকরা।

বৃষ্টি নিয়মে প্রথম ম্যাচে হারলেও দ্বিতীয় ম্যাচে ঘুরে দাঁড়াতে চায় স্বাগতিকরা। সোমবার মিরপুরে মুশফিকদের প্রস্তুতি দেখে এমনই মনে হয়েছে। এ সময় জাতীয় দলের পেসার আল আমিন হোসেন বলেন, ‘সামনের দুটো ম্যাচ নিয়ে চিন্তা করছি না। সামনে যে ম্যাচটা (দ্বিতীয়) আছে সেটাতে কামব্যাক করার চেষ্টা করবো।’

প্রথম ম্যাচে হারের কারণ নিয়ে তিনি বলেন, ‘যদি ৫০ ওভার খেলা হতো তাহলে সিচুয়েশন অন্যরকমও হতে পারতো। ওরা শুরুটা খুব ভালো করছিল। শুরুতে যদি আমরা উইকেট পেতাম বা রান আরও কম হতো তাহলে আমরা আরও ইতিবাচক হতে পারতাম। যেহেতু ডিএলএ খেলা হয়েছে।’
ভারতের দল নিয়ে তিনি বলেন, ‘দুর্বল দল বলবো না। ওরা আইপিএল খেলে এসেছে। ওখানে আন্তর্জাতিক ভালো ক্রিকেটাররা অংশগ্রহণ করে থাকে। ওরা হয়তো আন্তর্জাতিক ওইভাবে খেলেনি, দল হিসেবে ওরা অনেক ভালো খেলছে।’
আমাদের বোলাররা ইস, উস করে কিন্তু তারা উইকেট নেয় কীভাবে? এমন প্রশ্নে আল আমিন, ‘হয়তোবা, ওরা একটা দুইটা বল বিট হলে তখন বোলারদের ওপর চড়াও হচ্ছিল। ডাউন দ্য উইকেটে এসে চার মেরেছে। সেই ক্ষেত্রে আমাদের ব্যাটসম্যানরা একটু সেফ খেলেছে। আর একটা ব্যাটসম্যান যখন সেফ খেলে বোলাররা তখন আক্রমণাত্মক থাকে। সেক্ষেত্রে উইকেটটা বের করতে সহজ হয়। ওরা আমাদের সুযোগটা দেয়নি।’

নিজের প্রস্তুতি নিয়ে বলেন,‘ আমি বা মাশরাফি ভাই বলে দু’একটা ভালো বল হচ্ছিল পরের বলেই বাউন্ডারি মেরে দিচ্ছিল। আমরা চেষ্টা করবো সামনের ম্যাচে কামব্যাক করতে। আমরা টি-টোয়েন্টি খেলার পর একটা বিসিএল গেম খেলেছি। হাতে গোনা কয়েকটা খেলোয়াড়, সবাই খেলতে পারেনি। সেক্ষেত্রে ওরা কিন্তু আইপিএলের মতো ভালো টুর্নামেন্ট খেলেছে। সেদিক থেকে এগিয়ে রয়েছে।’

দলের পরিবর্তন নিয়ে জাতীয় দলের এ পেসার বলেন, ‘খুব বেশি বোলিংয়ে পরিবর্তন করা যায় না। পরিকল্পনা যেটা থাকে তা বাস্তবায়ন করতে হবে। আমরা যারা আছি যারা বোলিং করবো আশা করি ভালো করার চেষ্টা করবো।’

শেয়ার