বিয়ে নিয়ে বিপাকে শোয়েব আখতার

Shoaib aktar
সমাজের কথা ডেস্ক॥ বিয়ে নিয়ে বিপাকে পড়েছেন গতি দানব শোয়েব আখতার। সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত নিজের বিয়ের খবর অস্বীকার করেছেন পাকিস্তান ক্রিকেট দলের ‘গতিদানব’ শোয়েব আখতার। বিয়ের খবর প্রকাশের প্রায় চার ঘণ্টা পর ‘বিব্রত’ শোয়েব সাংবাদিকদের পক্ষ থেকে দায়িত্বশীল সংবাদ প্রচারের আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন।

শনিবার সকালে পাকিস্তানির এক্সপ্রেস ট্রিবিউনসহ বেশ ক’টি সংবাদ মাধ্যমে পরিবারের উদ্ধৃতি দিয়ে তার বিয়ের খবর প্রচার করা হলেও দুপুরের দিকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে এ বিষয়ে অবস্থান ব্যাখ্যা করেন শোয়েব।

দায়িত্বশীল সংবাদ প্রচারের আহ্বান জানিয়ে শোয়েব তার টুইটে বলেন, লিখে রাখুন, আমি বিয়ে করছি না!

এর আগে, সকালে সংবাদ মাধ্যমগুলোর খবরে বলা হয়, রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন। সেটা আনন্দের খবর হলেও ৩৯ বছর বয়সী শোয়েব বিয়ে করছেন তার অর্ধেকেরও কম বয়সী এক কিশোরীকে! ১৭ বছর বয়সী ওই কিশোরীর নাম রুবাব। পাকিস্তানেরই এক ধনাঢ্য বাবার আদুরে কন্যা তিনি।
সংবাদ মাধ্যমের প্রতিবেদন মতে, আগামী ১২ জুন নিজের শহর রাওয়ালপিন্ডিতে গিয়ে রুবাবের সঙ্গে বিয়ের দিনক্ষণ ঠিক করবেন শোয়েব। জুনের তৃতীয় সপ্তাহের কোনো এক শুভ দিনে তারা চারটি হাত এক করবেন বলে পারিবারিক সূত্র জানিয়েছে।
গত বছর সৌদি আরবে পবিত্র হজ পালন করতে গিয়ে তার বাবা-মা ব্যবসায়ী মুশতাক খানের সঙ্গে শোয়েব-রুবাবের বিয়ে নিয়ে আলোচনা করেন। মুশতাক পাকিস্তানের হাজারা বিভাগের হরিপুর জেলার খ্যাতনামা ধনকুবের।
প্রতিবেদনে আরও জানা যায়, শোয়েবের হবু বধূ ক্রিকেট ভক্ত নন। গতমাসে অ্যাবাটাবাদের একটি কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক শেষ করেছেন। তিন বড় ভাই ও এক আদুরে ছোট বোন রয়েছে রুবাবের।
সদ্য সমাপ্ত আইপিএলে ধারাভাষ্যকার হিসেবে সরব উপস্থিতি ছিল ২০১১ সালের মার্চে সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ম্যাচ খেলা শোয়েবের। ১৫ বছরের দীর্ঘ বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ারের অধিকারী শোয়েবকে মাঠ ও মাঠের বাইরে বিতর্ক ছাড় দেয়নি কখনো।

শেয়ার