বাড়ি দখল মামলায় মওদুদের বিরুদ্ধে দুদকের চার্জশিট অনুমোদন

Moudud Ahmed
সমাজের কথা ডেস্ক॥

ক্ষমতার অপব্যবহার করে পরিত্যক্ত ঘোষিত সরকারি সম্পত্তি ভোগ-দখলের অভিযোগে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ ও তার ভাই মনজুর আহমদের বিরুদ্ধে চার্জশিট অনুমোদন দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

বুধবার বিকেলে রাষ্ট্রীয় দুর্নীতিবিরোধী সংস্থাটির নিয়মিত সভায় এ চার্জশিট অনুমোদন হয়। অনুমোদনের পরই এক ব্রিফিংয়ে দুদক কমিশনার (তদন্ত) সাহাবুদ্দিন চুপ্পু বিষয়টি সাংবাদিকদের জানান।

তিনি বলেন, মামলাটির চার্জশিট অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। শিগগিরই আদালতে চার্জশিট দাখিল করা হবে।

ক্ষমতার অপব্যবহার করে জালিয়াতির মাধ্যমে রাজধানীর গুলশানে প্রায় ৩০০ কোটি টাকার সরকারি বাড়ি ভোগ-দখলের মাধ্যমে আত্মসাতের অভিযোগে গত বছরের ১৭ ডিসেম্বর গুলশান থানায় মওদুদ আহমদ ও তার ভাই মনজুরের বিরুদ্ধে বাদী হয়ে এ মামলা দায়ের করেন দুদকের উপ-পরিচালক হারুনুর রশীদ। মামলা নম্বর ১৮।

মামলার এজাহারে বলা হয়, মওদুদ আহমদ ও তাঁর ভাই রাজধানীর গুলশান অ্যাভিনিউয়ের ১৫৯ নম্বর বাড়িটি ভোগদখল করে আসছেন। বাড়িটির মূল মলিক অস্ট্রেলিয়ার অ্যাঞ্জেলস ফল। ওই নারীর মৃত্যুর পর তাঁর পাকিস্তানি স্বামী ওই বাড়িতে থাকতেন। কিন্তু ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় তিনি চলে যান। ১৯৭৩ সালে সরকার ওই বাড়িটি পরিত্যক্ত সম্পত্তি হিসেবে ঘোষণা করে। মওদুদ আহমদ তার ক্ষমতা ও প্রভাব খাটিয়ে লন্ডনপ্রবাসী ভাই মনজুর আহমদের নামে ভুয়া পাওয়ার অব অ্যাটর্নি (আম মোক্তারনামা) তৈরি করে বাড়িটি সরকারের কাছ থেকে বরাদ্দ নেন। ১৯৭৭ থেকে ১৯৮৯ সালের মধ্যে বাড়িটি দখলের পূর্ণ প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে বলে এজাহারে উল্লেখ করা হয়।

অন্যদিকে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিসিসি) রেকর্ড অনুযায়ী মওদুদ আহমদ ওই বাড়ির ভাড়াটিয়া।

শেয়ার