‘দক্ষিণাঞ্চলে কৃষি উন্নয়নে এখনও সমস্যা আছে’

abul mal abdul muhit
সমাজের কথা ডেস্ক॥ দক্ষিণাঞ্চলের কৃষির গুরুত্বের কথা উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত বলেছেন, কৃষি কর্মকা-ের জন্য দেশের দক্ষিণাঞ্চল অনেক গুরুত্বপূর্ণ। তবে এখনও এই অঞ্চলে লবণাক্ততা, বন্যা, খরা ও বিভিন্ন ধরণের প্রাকৃতিক দুর্যোগের মতো সমস্যা রয়ে গেছে।

রোববার সকালে নগরীর শেরে বাংলানগর এনইসি-২ সম্মেলন কক্ষে ‘বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলের কৃষি উন্নয়নের জন্য প্রণীত মহাপরিকল্পনা’ এর উপস্থাপনার বিষয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

মুহিত আরো বলেন, দক্ষিণাঞ্চলের সমস্যা সমাধান ও কৃষি উন্নয়নে নানা ধরণের প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়েছে যার মধ্যে অনেক প্রকল্প আছে বাস্তবায়নাধীন। প্রকল্পগুলো বাস্তবায়িত হলে এর সুফল পাওয়া যাবে।

অর্থমন্ত্রী বলেন, প্রাণিসম্পদ ও মৎস্য গুরুত্বপূর্ণ সম্ভাবনাময় খাত। আর এই খাত বাস্তবায়নের জন্য দক্ষিণাঞ্চল খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

মন্ত্রী জানান, মহাপরিকল্পনা খাতে অগ্রাধিকারভূক্ত খাত হিসেবে ফসল, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ, পুষ্টি, পানিসম্পদ ব্যবস্থাপনা , পোল্ডার ব্যবস্থাপনা, ড্রেনেজ ব্যবস্থাপনার উন্নয়ন, কৃষি বাণিজ্য, কৃষি ঋণ, কৃষি খাতের সঙ্গে সম্পৃক্ত জনশক্তির দক্ষতা বৃদ্ধি ইত্যাদি বিষয়কে চিহ্নিত করা হয়েছে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে কৃষি মন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরি বলেন, সকলের সমন্বিত প্রচেষ্টায় মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়নের মাধ্যমে ২০২১ সালে দক্ষিণ অঞ্চলকে দেশের সামগ্রিক কৃষির অন্যতম সফল অঞ্চল হিসেবে প্রতিষ্ঠা করা সম্ভব হবে। মহাপরিকল্পনাটির সফল বাস্তবায়নে সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন।

কর্মসূচির আয়োজন করে অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ (ইআরডি)। ইআরডি সচিব মোহাম্মদ মেজবাহউদ্দিনের সভাপতিত্বে, পরিকল্পনা কমিশনের সদস্য ( কৃষি, পানিসম্পদ ও পল্লী প্রতিষ্ঠান) উজ্জল বিকাশ দত্ত , কৃষি সচিব ড. এস এম
নাজমুল ইসলাম।

এছাড়া জাপান, ডিএফআইডি, ইউএনডিপি, জাতিসংঘসহ অন্যান্য দাতা সংস্থার প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

২০১৩ সালের ৩০ জুলাই কৃষিমন্ত্রী এবং বন ও পরিবেশ মন্ত্রী আনুষ্ঠানিকভাবে মহাপরিকল্পনাটির মোড়ক উন্মোচন করেছিলেন।

শেয়ার