খুলনায় দেশের প্রথম গণহত্যা-নির্যাতন আর্কাইভ ও জাদুঘরের উদ্বোধন

ao
খুলনায় দেশের প্রথম গণহত্যা-নির্যাতন আর্কাইভ ও জাদুঘরের উদ্বোধন হলো খুলনার ময়লাপোতা মোড়ে প্রয়াত চিকিসৎক ডা. নাসিমের বাড়ির নিচতলায়। এ উপলক্ষে বিকেলে নগরীর বিএমএ মিলনায়তনে একাত্তরের গণহত্যা ও নির্যাতন সম্পর্কিত ৩দিনব্যাপী আলোকচিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন জনা করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ.ক.ম মোজ্জাম্মেল হক।
এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী বলেন, আমাদের মুক্তিযুদ্ধ বাংলাদেশের অহংকার। এ যুদ্ধে ৩০ লাখ মানুষ শহীদ হন। ২ লাখ মা-বোন ইজ্জত হারান। কিন্তু বারবার এ মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃত করার প্রচেষ্টা চলেছে। তিনি বলেন, খুলনায় দেশের প্রথম গণহত্যা-নির্যাতন আর্কাইভ ও জাদুঘর স্থাপনের উদ্যোগকে অত্যন্ত সমপোযোগী ও প্রশংনীয়। এর মাধ্যমে ইতিহাস বিকৃতির প্রবণতা রোধ করা সম্ভাব। ইতিহাস বিকৃতির হাত থেকে রেহাই পাওয়ার জন্য দেশের অন্যান্য স্থানেও এ ধরনের আর্কাইভ ও যাদুঘর স্থাপন করতে হবে। তিনি নতুন প্রজন্মের কাছে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস তুলে ধরার জন্য সকলের প্রতি আহ্বান জানান। সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ড. মুনতাসীর মামুন, চিত্রশিল্পী হাসেম খান ও অধ্যাপক ড. সেলিম। এতে সভাপতিত্ব করেন ১৯৭১’র গণহত্যার নির্যাতন আর্কাইভ ও জাদুঘর বাস্তবায়ন কমিটির আহ্বায়ক ডা. শেখ বাহারুল আলম। সকালে দেশের প্রথম গণহত্যা-নির্যাতন আর্কাইভ ও জাদুঘরের উদ্বোধন করেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ড. মুনতাসীর মামুন। ১৭-১৯ মে ৩দিনব্যাপী আলোকচিত্র প্রদর্শনী বিকেল ৩টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত সকলের জন্য উম্মুক্ত থাকবে।

শেয়ার