‘সবচেয়ে বড়’ ডাইনোসর আবিষ্কার

dino
সমাজের কথা ডেস্ক॥ আর্জেন্টিনায় একটি ডাইনোসরের ফসিল হয়ে যাওয়া হাড়গোড় পাওয়ার পর এটিকে পৃথিবীর বুকে হাঁটা সর্ববৃহৎ প্রাণী বলে ধারণা করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন জীবাশ্মবিদরা।
খুঁজে পাওয়া ঊরুর একটি হাড়ের ওপর নির্ভর করে ডাইনোসরটি দৈর্ঘ্যে ১৩০ ফুট (৪০ মিটার) ও উচ্চতায় ৬৫ ফুট (২০ মিটার) ছিল বলে হিসাব করা হয়েছে।
১৪টি আফ্রিকান হাতির ভরের চেয়েও বেশি ভরের ডাইনোসরটির ভর ছিল ৭৭ টন। আগের রেকর্ড ৭০ টন থেকে এটির ভর আরো সাতটন বেশি।
ডাইনোসরের এ প্রজাতিটির নাম আর্জেন্টিনোসরাস। এই প্রজাতির ডাইনোসরের প্রথম নমুনা আর্জেন্টিনায় পাওয়া গিয়েছিল বলে দেশটির নামানুসারে এমন নামকরণ করা হয়েছে।
বিজ্ঞানীরা বিশ্বাস করেন, আর্জেন্টিনোসরাস টাইটানোসর গণের একটি নতুন প্রজাতি। তৃণভোজী এই গণের সদস্যরা ক্রিটেসিয়াস পর্বের শেষ দিকে আবির্ভূত হয়েছিল বলে ধারণা করা হয়।
আর্জেন্টিনার পাতাগোনিয়া মুরুভূমির লা ফ্লেচা এলাকায় আর্জেন্টিনোসরাসের জীবাশ্মগুলো পাওয়া যায়। স্থানীয় একটি খামারের কর্মীরা অপ্রত্যাশিতভাবে জীবাশ্মগুলো আবিষ্কার করেন।
এরপর আর্জেন্টিনার জীবাশ্ম জাদুঘরের একদল জীবাশ্মবিদ প্রাচীন প্রাণীর এই অবশিষ্টাংগুলো উদ্ধার করেন।
তাদের অভিযানে যে ১শ’ ৫০টি জীবাশ্ম মাটির নীচ থেকে তুলে আনা হয় তা মোট সাতটি আর্জেন্টিনোসরাসের বলে জানানো হয়েছে। তবে কোনো আর্জেন্টিনোসরাসের পুরো দেহের জীবাশ্ম পাওয়া যায়নি।
তবে যা পাওয়া গেছে তা খুব ভাল অবস্থায় আছে বলে জানিয়েছেন জীবাশ্ম বিজ্ঞানীরা।

শেয়ার